গুগল কিভাবে টাকা আয় করে ? (How Google Earns)

তাহলে, আজকের আমাদের বিষয়টি একটু আলাদা। আজকে আমরা অনলাইন ইন্টারনেট থেকে টাকা আয় করার বিষয় নিয়ে কথা বলবোনা।

কি কি মাধ্যমে গুগলের ইনকাম হয় ?

তবে, হাজার লক্ষ লোকেরা দেশ বিদেশ থেকে ঘরে বসেই যেই কোম্পানির মাধ্যমে টাকা আয় করছেন, সেই কোম্পানিটি কিভাবে ইনকাম করছেন, সেই বিষয়ে জানবো।

হে, আপনি ঠিকি বুঝেছেন, আমরা আজ কথা বলবো “গুগল কিভাবে টাকা আয় করে” এই বিষয়টি নিয়ে।

গুগলকে বিশ্বের সব থেকে বড় সেরা ৪ technology company গুলির মধ্যে ধরা হয়।

আজ, আমার এবং আপনার মতো লোকেরা, Blogger, YouTube, Google play store বা Adsense এর মাধ্যমে, অনলাইন টাকা আয় করতে পারছি।

এই সব ধরণের সার্ভিস গুলি কিন্তু গুগলের।

এবং আমি যদি ভুল ভাবছিনা, তাহলে আজ Google এর service গুলি ব্যবহার করে, লোকেরা প্রত্যেক দিন হাজার হাজার টাকা আয় করছেন।

আপনি কল্পনাও করতে পারবেননা যে কেবল “গুগল এডসেন্স” এর মাধ্যমে, প্রত্যেক দিন কতটা টাকা অনলাইনে আয় করা যেতে পারে।

Google যদি প্রত্যেক দিন হাজার লক্ষ লোকেদের হাজার হাজার টাকা আয় করার সুযোগ দিচ্ছে, তাহলে প্রশ্ন হলো “গুগল নিজে কিভাবে আয় করে ?“.

এই প্রশ্নের উত্তর দেয়ার উদ্দেশেই আজ এই আর্টিকেলটি আমি লিখছি।

তাই আজ আমরা জেনেনিব, কিভাবে এবং কোন কোন মাধ্যমে গুগল টাকা আয় করছে। (How Google Is Earning Money).

গুগল কিভাবে আয় করে ? (How Google Earns Money)

গুগল কিভাবে ইনকাম করে, বিষয়টি নিয়ে কথা বলার আগে “গুগল কি” এই বেপারে অল্প জেনেনেই চলুন।

Google LLC হলো একটি “American multinational technology company” যে, internet এর সাথে জড়িত product এবং service এর বিশেষজ্ঞ।

মানে, Google দ্বারা অনেক ধরণের নামকরা products এবং services তৈরি করা হয়েছে, যেগুলি বিশেষ ভাবে internet related.

গুগলের কিছু জনপ্রিয় এবং বিখ্যাত products এবং services গুলি হলো, “online advertising solutions”, “cloud computing solutions”, “Search engine”, “Android OS”, “office tools”, ” email service”, “blogger”, “Google play store” এবং আরো অনেক।

তবে, গুগলকে আমরা সবাই এবং ৬৫% লোকেরা একটি online web search engine বলেই চিনেন।

কারণ, সবচে আগে গুগল (Google) কেবল একটি web search engine থেকেই আরম্ভ হয়েছিল।

বর্তমানে গুগল কোন কোন মাধ্যমে টাকা আয় করছে ?

সত্যি বললে, গুগলের বিভিন্ন ধরণের online services এবং software ও hardware রয়েছে।

তাই, গুগল কেবল একটি বা দুটি মাধ্যমে ইনকাম করছেনা।

তবে, সবচেয়ে বেশি ইনকাম “online advertisements” থেকেই হচ্ছে বলে বললে আমি ভুল হবোনা।

কারণ, online advertisement, digital marketing, search engine marketing এবং ইন্টারনে বিজ্ঞাপনের মাধ্যমে যেকোনো product বা service প্রচার করার জন্য, “Google ads” সব থেকে বেশি ব্যবহার করা হয়।

২০১৭ সালে, প্রায় “$110.8 billion revenue” কেবল মাত্র গুগলের online advertising service, “Google ads” থেকে আয় করা হয়েছিল।

বর্তমানে, online advertisement এবং digital marketing এর প্রচলন কতটা বেশি, সেটা আমরা সবাই জানি।

তাই বর্তমানে, অনলাইন বিজ্ঞাপনের থেকে গুগলের ইনকাম ২০১৭ থেকেও অধিক বেশি।

  • ২০১৯ সালের চতুর্থ সিকিতে (quarter), Google search এবং অন্যান্য advertising revenues ছিল প্রায় $27.2 billion.
  • YouTube দ্বারা $4.7 billion জেনারেট হয়েছিল advertising revenue ২০১৯ সালের চতুর্থ সিকিতে (quarter)।

তাহলে বুঝতেই পারছেন যে, গুগলের সব থেকে বেশি আয়, online advertising এর মাধ্যমেই হচ্ছে।

চলুন, নিচে আমরা গুগলের আয়ের কিছু অন্যান্য মাধ্যম গুলির বেপারে জেনেনেই।

কি কি মাধ্যমে গুগল আয় করছে ?

নিচে দেয়া মাধ্যম গুলির থেকে গুগল সব থেকে বেশি পরিমানে ইনকাম করছে।

১. Selling advertisements on google 

googler
Google earns by selling search ads.

ওপরে ছবিতে আপনারা অবশই দেখতে পারছে, যখন গুগল সার্চে কোনো keyword বা topic নিয়ে search করা হয়, তখন google, তার SERP ( search engine result page ) এ সবচেয়ে ওপরের ভাগে, কিছু বিজ্ঞাপন দেখায়।

এই বিজ্ঞাপন গুলি, google search engine এ দেখানোর জন্য, বিভিন্ন লোকেরা (advertiser) এবং কোম্পানিরা গুগলকে টাকা দেয়।

Google ads platform ব্যবহার করে, জেকেও কোন keywords বা subject নিজে বিজ্ঞাপন দেখতে চায়, সেটা গুগলকে বলে দিতে পারে।

গুগলের এই online advertising platform এ গিয়ে, নিজের product, service, website, video বা app এর marketing, promotion, app installs বা advertising করাতে পারবেন।

এবং, যার বিনময়ে গুগল “advertisers” দেড় থেকে কিছু টাকা নিয়ে নেয়।

তবে, google ads এ দেওয়া আপনার বিজ্ঞাপন গুলি দেখানোর জন্য, গুগল কিন্তু কেবল “search engine” অব্দি সীমিত থাকেনা।

Google কে অনলাইনে দেখানোর জন্য দেওয়া আপনার বিজ্ঞাপন গুলি, “search engine” এর সাথে সাথে বিভিন্ন “website“, “apps” এবং “blogs” গুলিতেও বিজ্ঞাপন হিসেবে দেখানো হয়।

যেকোনো Physical marketing এর প্রক্রিয়ার তুলনায়, Google ads এর মাধ্যমে করা এই “digital marketing” এর প্রক্রিয়া অনেক সস্তা।

তাছাড়া, digital marketing দ্বারা জেকেও অনেক সহজে লক্ষ্যবস্তু গ্রাহক (targeted customers) অনেক সহজেই পেয়ে যেতে পারছেন।

তাই, এই অনলাইন বিজ্ঞাপনের মাধ্যমে গুগল প্রচুর পরিমানে টাকা আয় করে নিচ্ছে।

২. Google play store

আমরা সবাই জানি, Google play store হলো Google এর একটি সার্ভিস যেখানে হাজার হাজার রকমের “Android apps” আমরা পেয়ে যাই।

তবে, গুগল প্লে স্টোরে জেকেও তার নিজের application (apps) ছাড়ার জন্য, গুগলকে $25 ফী (fee) হিসেবে দিতে হয়।

এবং, প্রত্যেক দিন হাজার হাজার apps গুগলের প্লে স্টোরে ছাড়া হয়।

তাই, অনুমান অবশই করতে পারছেন যে, এর দ্বারা গুগলের কতটা ইনকাম হতে পারে।

৩. Software by Google 

গুগলের এমনিতে অনেক ধরণের computer software এবং android mobile software রয়েছে।

তবে, বেশিরভাগ software বা apps আমরা ফ্রীতেই ব্যবহার করতে পারি।

কিন্তু কিছু কিছু apps বা software রয়েছে, যেগুলি আমাদের গুগলের থেকে কিনে ব্যবহার করতে হয়।

তাছাড়া, গুগলের নিজের mobile operating system (OS) রয়েছে যাকে আমরা “Android” বলে জানি।

আমরা সবাই জানি যে, android OS কতটা জনপ্রিয় এবং যেকোনো স্মার্টফোনে এই OS এর চাহিদা কতটা।

এই ক্ষেত্রে, বিভিন্ন মোবাইল কোম্পানিরা Google এর android OS তাদের মোবাইলে ব্যবহার করার জন্য, গুগলকে অবশই টাকা দিতে হয়।

তাই, আপনারা নিজেই ভেবেনিন, যেকোনো দেশে android মোবাইলের চাহিদা কতোটা বেশি।

এবং প্রায় প্রত্যেক মোবাইল কোম্পানি নিজের মোবাইলে গুগলের এই android OS ব্যবহার করছে।

তাই, এখান থেকেও গুগল প্রচুর টাকা আয় করছে।

৪. Google cloud services 

Google cloud platform হলো Google এর একটি paid service, যেটা cloud computing এর জন্য প্রদান করা হয়।

সোজা ভাবে বললে, এটা এক ধরণের cloud web hosting, যার ব্যবহার website hosting করা, Developer Tools, data storage, Networking, API Management, machine learning বা cloud computing এর ব্যবহার করা হয়।

তবে, এই cloud web service সবাইর পক্ষ্যে ব্যবহার করাটা সহজ না।

কেননা, অন্যান্য cloud services গুলির তুলনায়, গুগলের cloud services টি অল্প বেশি advanced.

অন্যদের তুলনায় অনেক দ্রুত, আধুনিক এবং উচ্চ মানের গুগলের এই service.

তবে, এই google cloud service ব্যবহার করার জন্য আপনার ভালো পরিমানের টাকা খরচ করতে হবে।

অন্যান্য যেকোনো cloud web service গুলির তুলনায় Google cloud service এর জন্য আপনার অল্প বেশি টাকা দিতে লাগবে।

এবং তাই, এই ক্ষেত্রেও Google ভালো পরিমানে টাকা এর cloud services এর মাধ্যমে আয় করে নিচ্ছে।

৫. From YouTube ads

Earning from YouTube ads.

YouTube হলো Google এর একটি সার্ভিস, যেখানে লক্ষ লক্ষ videos রয়েছে।

তাছাড়া, প্রত্যেক দিন হাজার হাজার নতুন videos এখানে upload করা হয়।

YouTube গুগলের এমন একটি business model, যেখান থেকে Google তার মোট আয়ের অধিকাংশ advertisement revenue হিসেবে আয় করে।

মানে, ইউটিউবে থাকা ভিডিও গুলিতে, গুগলের দ্বারা বিজ্ঞাপন দেখানো হয়।

আপনি যখন, YouTube এ ভিডিও দেখেন, তখন বেশিরভাগ ভিডিও শুরু হওয়ার আগেই এবং অনেক ক্ষেত্রে ভিডিওর মাঝে মাঝে কিছু বিজ্ঞাপন দেখানো হয়।

এবং, আপনি যদি সেই বিজ্ঞাপন সম্পূর্ণ দেখেন, তখন YouTube প্রায় $0.20-$1.75 আয় করে নেয়।

বিজ্ঞাপনের বিনিময়ে আয় করা টাকার পরিমান বিভিন্ন আলাদা আলাদা বিষয়ের ওপরে নির্ভর করে।

বিভিন্ন বড় বড় কোম্পানি থেকে শুরু করে স্বতন্ত্র ব্যক্তিরাও YouTube কে টাকা দেয় কিছু বিখ্যাত এবং জনপ্রিয় YouTube channel গুলিতে তাদের বিজ্ঞাপন দেখানোর জন্য।

গুগলের মোট আয়ের একটি বড় ভাগ, search engine এবং YouTube এ হওয়া এই advertisements গুলির থেকে আসে।

৬. Adsense network

Google adsense হলো এমন একটি network যেটা ব্যবহার করে Google প্রচুর টাকা আয় করছে।

গুগলের এই platform ব্যবহার করেন “content writers / creators” রা।

যেমন আমি বা যেকোনো অন্য blogger বা YouTube channel মালিকেরা।

Adsense এর মাধ্যমে, blog বা YouTube channel মালিকেরা, তাদের কন্টেন্টের মাধ্যমে টাকা আয় করতে পারেন।

বিভিন্ন advertisers রা, গুগলকে “Google ads platform” এর মাধ্যমে তাদের product এবং services গুলির বিজ্ঞাপন দেখানোর জন্য টাকা দেয়।

এবং, বিভিন্ন blogger বা YouTube channel গুলি “Google adsense” এর মাধ্যমে, সেই বিজ্ঞাপন গুলি নিজেদের অনলাইন কন্টেন্টের (online content) মাধ্যমে ভিজিটর্স দেড় দেখায়।

যার বিনিময়ে, গুগল advertisers দেড় থেকে আয় করা টাকার কিছু অংশ এই “content creators বা ad publishers” দেড় দেয়।

এতে, advertisers রা targeted audience পেয়ে যাওয়ার সাথে সাথে, Google এবং আমার মতো online content creators রাও টাকা আয় করার সুযোগ পেয়ে পাচ্ছেন।

এতে, সবাইর লাভ হচ্ছে।

তাই, এই মাধ্যমে গুগল সব থেকে বেশি টাকা আয় করতে পারছেন।

৭. Google pixel smartphone 

Google pixel হলো একটি consumer electronic service device এর brand যেটা Google দ্বারা নির্মিত।

গুগলের এই device বা smartphone গুলিতে “chrome OS” বা “android operating system” ব্যবহার করা হয়েছে।

এই pixel devices গুলির মধ্যে, laptops, smartphones, tablets এবং আরো অন্যান্য device রয়েছে।

তাই, pixel devices গুলিও গুগলের ইনকামের একটি বড় মাধ্যম।

 

আমাদের শেষ কথা,

তাহলে বন্ধুরা, বুঝলেনতো “কিভাবে গুগল আয় করছে ?”.

এমনিতে গুগলের সব থেকে বেশি পরিমানে আয় “Google ads” এবং “Google adsense” থেকেই বিজ্ঞাপনের মাধ্যমে হয়।

তবে, যা আমি ওপরে বললাম, গুগলের আরো অন্যান্য products, services এবং software রয়েছে যেগুলিও কিন্তু গুগলের আয়ের মাধ্যম।

তাছাড়া, “Google pixel” গুগলের দ্বারা develop করা consumer electronic service devices (smartphones), যেটা গুগলের আয়ের একটি ভালো অংশ কভার (cover) করে।

Related Contents:

1 thought on “গুগল কিভাবে টাকা আয় করে ? (How Google Earns)”

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top