অনলাইনে ছবি এডিট করার ওয়েবসাইট গুলির তালিকা – (সেরা ১২টি)

Last updated on May 8th, 2024 at 11:54 am

এমনিতে, অনলাইনে ছবি এডিট করার বিভিন্ন অ্যাপস বা সফটওয়্যার গুলি আমাদের কাছে রয়েছেই। Google Play Store-এ গিয়ে সম্পূর্ণ ফ্রীতে ছবি এডিট করার নানান অ্যাপস গুলি মোবাইলে ডাউনলোড করে এডিটিং অনেক সহজেই সম্ভব।

তবে, অনেকেই আছেন যারা ইমেজ এডিট করার ক্ষেত্রে কিছু অনলাইন টুল গুলি ব্যবহার করাটা সুবিধাজনক বলে মনে করেন। আর এক্ষেত্রে তারা নানান ছবি এডিট করার ওয়েবসাইট গুলির বিষয়ে জেনেনিতে আগ্রহী।

যদি আপনি একজন ব্লগার বা ডিজিটাল মার্কেটার, তাহলে ব্লগের থাম্বনেইল বা নানান গ্রাফিক্স তৈরি করার জন্যও একটি অনলাইন ফটো এডিটর টুল এর প্রয়োজন আপনার অবশই হবে।

এই ক্ষেত্রে, ইন্টারনেটে অনলাইনে ফটো এডিট করার এমন অনেক ওয়েবসাইট বা টুল রয়েছে, যেগুলি আপনারা ফ্রীতেই ব্যবহার করতে পারবেন।

অনলাইনে ছবি এডিট করার এই ওয়েবসাইট বা টুল গুলি আপনারা অনেক সহজেই ব্যবহার করতে পারেন। তাছাড়া, এগুলিতেও আপনারা যেকোনো ছবি এডিট করার জন্য জরুরি প্রত্যেক tools, features, effects, add text, cropping image, resize image, ইত্যাদি, পেয়ে যাবেন।

এছাড়া, এই অনলাইন ফটো এডিটর ওয়েবসাইট গুলি ব্যবহার করলে আপনেকে আলাদা ভাবে কোনো ধরণের software download বা কম্পিউটারে software install করার ঝামেলা আপনার থাকছেনা।

ফটো এডিট করার এই অনলাইন টুলস বা ওয়েবসাইট গুলিতে গিয়ে, ছবি আপলোড করে, নিমিষের মধ্যে এডিটিং এর কাজ শুরু করে নিতে পারবেন।

তাহলে চলুন, নিচে আমরা সরাসরি অনলাইনে ছবি এডিট করার কিছু সেরা ফটো এডিটর ওয়েবসাইট গুলির ব্যাপারে জেনে নেই যেগুলি ফ্রীতে ব্যবহার করা যেতে পারে।

অনলাইনে ছবি এডিট করার ওয়েবসাইট – সেরা ৯টি

অনলাইনে ছবি এডিট করার ওয়েবসাইট
Best websites to edit images online for free.

নিচে আমি, অনলাইনে ইমেজ এডিড করার যেগুলি ওয়েবসাইট এর নাম আপনাদের বলবো, সেগুলি সব ফ্রি।

তবে, কিছু কিছু tools ব্যবহার করার জন্য আপনার একটি একাউন্ট রেজিস্টার করতে লাগতে পারে। এমনিতে সেটা কোনো বড় বেপার না।

কেবল ২ মিনিটেই একটি একাউন্ট তৈরি করে নিতে পারবেন, যদি প্রয়োজন হয়।

অনলাইন ফটো এডিটর সাইট:সেরা ফীচার:ফ্রি/পেইড:
১. Fotor.comAI photo editor,Free Photo Editor
২. Picozu.comDrawing, image retouching,Free Photo Editor
৩. PhotocatMultiple image styles,Only For, Apple iOS
৪. CanvaDesign, edit, create images,Free/paid
৫. Pixlr: Free Online Photo EditorModern photo editing tools,Free/paid
৬. PicMonkey Photo EditorSuper-powered photo effects,Free trial/Paid
৭. Befunky.comPhoto editing, collage, graphic design,Free
৮. PicsArtAdvanced editing tools,Free/Paid
৯. PhotopeaSimple & powerful tools,Free
১০. MockoFUNAccess to a selection of tools,Free
১১. VistaCreateBest alternative to Canva,Free/paid
১২. StencilCreate beautiful social media graphics,Free/paid

অনলাইনে ফটো এডিট করার সেরা ৯টি সাইট:

উপরে বলে দেওয়া প্রত্যেকটি অনলাইন ফটো এডিটর ওয়েবসাইট গুলির বিষয়ে চলুন নিচে বিস্তারিত জেনেনেই। মনে রাখবেন, বলে দেওয়া বেশিরভাগ ওয়েবসাইট গুলিতেই সম্পূর্ণ ফ্রীতে কোনো টাকা না দিয়ে আপনি যেকোনো ছবি এডিট করতে পারবেন।

তবে, এদের মধ্যে এমনও কিছু অনলাইন ফটো এডিট সাইট রয়েছে যেগুলিতে ফ্রি এবং পেইড দুটো ভার্সন এই রয়েছে। তাই, আপনি চাইলে এই সাইট গুলির থেকে তাদের প্রিমিয়াম ভার্সন কিনে নিয়ে advance image editing tools গুলি ব্যবহার অবশই করতে পারবেন।

১. Fotor

fotor online image editor
Fotor online image editor website.

Fotor tool টি হলো এজটি অনেক জনপ্রিয় অনলাইন ফ্রি ফটো এডিটর সাইট যেখানে আপনারা যেকোনো ছবি অনলাইনে এডিট করে নিতে পারবেন। এই ওয়েবসাইটে আপনারা সহজেই কোনো অসুবিধে ছাড়া নিজের ইমেজ গুলিকে অনলাইনে ডিজাইন ও এডিট করতে পারবেন।

ওয়েবসাইটটির user interface অনেক ভালো এবং আমি নিজেই এই টুল ব্যবহার করছি। কোনো রকমের installation বা download করা ছাড়াই, আপনারা নিজের মোবাইল বা কম্পিউটার এর মাধ্যমে অনলাইন ফটো এডিটিং করতে পারবেন।

এই online photo editor tool এর বিশেষ কিছু features রয়েছে। যেমন, image color adjust, size & light adjust, HDR effects এবং আরো অনেক।

তাছাড়া, এখানে আপনারা আগের থেকেই ডিজাইন করা ১০০০ থেকেও বেশি professionally designed templates পেয়ে যাবেন।

এই templates গুলি আপনারা বিভিন্ন ক্ষেত্রে ব্যবহার করতে পারবেন। যেমন, YouTube thumbnail, blog thumbnail হিসেবে বা social media মার্কেটিং এর ক্ষেত্রে। এছাড়া, অনলাইন ফটো কলেজ তৈরি করার জন্যও এই FOTOR tool ব্যবহার করতে পারবেন।

Features of Fotor online editor :

  • অনলাইন ফটো কলেজ তৈরি করাটা সম্ভব।
  • User interface অনেক ভালো ও user friendly.
  • আপনাকে যেকোনো ফটোকে (photo) edit, resize, crop, brightness adjust করতে দিবে।
  • ছবিতে stickers, text, effects এবং border যোগ করতে দিবে।

>> Website: fotor.com/create

২. Picozu 

অনলাইন ফটো এডিটর
Picozu image editor.

এটাও হলো একটি সেরা অনলাইন ছবি এডিট করার ওয়েবসাইট যেটা ব্যবহার করাটা প্রত্যেকের ক্ষেত্রেই সহজ। এই picozu ওয়েবসাইটটি, সম্পূর্ণ ফ্রি এবং এটা সম্পূর্ণ ভাবে অনলাইনেই কাজ করে।

ওয়েবসাইটের ওপরে থাকা “Image” লিংকে ক্লিক করে, আপনারা নিজের কম্পিউটার থেকে images আপলোড করে নিতে পারবেন। তারপর, বিভিন্ন options যেমন, image, edit, layer, tools, filters ইত্যাদি ব্যবহার করে, নিজের ছবি গুলিকে অনলাইনেই এডিট করে নিতে পারবেন।

এই web application টি তৈরি করা হয়েছে html 5 ব্যবহার করে। আর এখানে আপনারা, brushes, filters, layer এবং আরো অন্যান্য tools ব্যবহার করে ছবি গুলিকে এডিট করে নিতে পারবেন।

Features of picozu editor:

  • অনলাইনে ছবি এডিট করার সুবিধা পাবেন।
  • বিভিন্ন এডিটিং টুলস দেওয়া হবে।
  • User interface অনেক user friendly ও সহজ।
  • তৈরি করা ছবি automatically save করতে দেওয়া হয়।

>>  Website: picozu.com/

৩. Photocat

অনলাইন ছবি এডিটিং
Online picture editor.

Photocat একটি অনেক ভালো অনলাইন picture editor ওয়েব এপ্লিকেশন। এখানে আপনারা বিভিন্ন ধরণের image editing tools পেয়ে যাবেন।

Photocat ওয়েবসাইটে ফটো এডিট করার পর, সেগুলি সরাসরি social media platform যেমন, Facebook, Twitter এবং Instagram এ শেয়ার করতে পারবেন।

ছবি এডিট করার সময় আপনারা real time image editing experience নিয়ে নিতে পারবেন। তবে, এর web application ব্যবহার করার জন্য, “flash player” এর প্রয়োজন হবে।

Features of Photocat editor:

  • অন্যান্য অনলাইন ইমেজ এডিটিং ওয়েবসাইটের তুলনায় অনেক আকর্ষণীয়।
  • সহজেই ব্যবহার করা যাবে।
  • ফ্রীতেই বিভিন্ন features যেমন saturation, hue, contrast, brightness, rotate, crop ইত্যাদি ব্যবহার করতে পারবেন।
  • অনেক রকমের effects অবশই রয়েছে যেগুলি ছবিতে ব্যবহার করা যাবে।

>> Website: photocat.com/edit/

৪. CANVA 

best online tool to edit images
Best online tool to edit images.

Canva, অনলাইনে ডিজিটাল গ্রাফিক্স তৈরি এবং যেকোনো ফটো এডিট করার নানান ওয়েবসাইট গুলির মধ্যে আমার সব থেকে প্রিয় সাইট।

ইউটিউবের ভিডিও হোক বা ব্লগের থাম্বনেইল, সবটার জন্য আমি canva ব্যবহার করেই থাম্বনেইল তৈরি করি। Canva এমনিতে আপনাকে সম্পূর্ণ ফ্রীতেই photo editing বা designing এর কাজ করতে দিবে।

তবে, এর কিছু paid premium features অবশই রয়েছে। এখানে আপনারা আগের থেকে তৈরি করা অনেক ডিজাইনের thumbnail পেয়ে যাবেন। যেমন, poster, YouTube thumbnail, YouTube channel art, logo design, phonographic, Facebook ও Instagram post thumbnails.

Digital marketing এর ক্ষেত্রেও যদি আপনার ইমেজ এডিট ও তৈরি করতে হয়, তাহলে সম্পূর্ণটা এখানে ফ্রীতেই করতে পারবেন। Blogger এর digital marketer দের মধ্যে অনেক জনপ্রিয় এই অনলাইন টুল।

Features of canva editor tool:

  • বিভিন্ন রকমের আগের থেকে তৈরি templates পেয়ে যাবেন।
  • ব্লগ পোস্টের জন্যে সহজে ইমেজ ডিজাইন করা সম্ভব।
  • অনেক রকমের ফ্রি স্টক ইমেজ পেয়ে যাবেন।
  • ভালো ভালো font styles রয়েছে।
  • বিভিন্ন ধরণের elements ছবিতে যোগ করতে পারবেন।
  • Text, photos, videos, background এবং বিভিন্ন effects apply করতে পারবেন।

>> Canva website: canva.com/

5. Pixlr 

Pixlr free image editing website

এই ওয়েবসাইটে আপনারা দুই ধরণের অনলাইন ফটো এডিটর টুল পেয়ে যাবেন।

  • Pixlr X
  • Pixlr E

এমনিতে, দুটোই সেরা এডিটর যদিও দুটোর মধ্যেই পার্থক্য কিছু রয়েছে। সরাসরি ফটো আপলোড করে এডিটিং এর কাজ শুরু করার জন্য, Pixlr X ব্যবহার করুন।আধুনিক photo editing tools effects আপনারা এখানে পেয়ে যাবেন।

PSD (Photoshop), PXD, JPEG, PNG format এর ছবি গুলি এখানে open করতে পারবেন। Pixlr X অনেক শক্তিশালী একটি অনলাইন টুল যেটা যেকোনো নতুন ভাবে কাজ করা লোকের জন্য সেরা।

দারুন effects এবং layouts এর মাধ্যমে ছবি গুলিকে আরো আকর্ষণীয় করে নিতে পারবেন।

কিছু আধুনিক editing tool যেমন, add element, Text, drawing, retouch, liquify, filter, color adjust, crop, background remove ইত্যাদি আপনারা এখানে পাবেন।

>> Pixlr website: pixlr.com/editor/ 

৬. PicMonkey 

Picmonkey এক অনেক শক্তিশালী এবং কাজের অনলাইন ফটো এডিটর সাইট। এমনিতে এই ফটো ওয়েব টুল অনেক জনপ্রিয় এবং অনেকেই এর ব্যবহার করছেন।

এই টুল সম্পূর্ণ রূপে ফ্রি ভাবে আপনারা ব্যবহার করতে পারবেন। কিন্তু, ফ্রীতে ব্যবহার করার জন্য, কেবল trial version আপনাকে দেওয়া হবে।

সম্পূর্ণ features এবং tools পাওয়ার জন্য pro-version কিনে নিতে হবে।

কলেজ (collage) ফটো তৈরি করা, শক্তিশালী ইমেজ এডিটিং টুলস এবং টেক্সট ডিজাইন ফ্রীতেই ব্যবহার করতে পারবেন। এছাড়া, অন্যান্য অনেক ভালো ভালো features আপনার কাছে থাকবে।

Image output size নিজের হিসেবে মিলিয়ে নিতে পারবেন।

>> Picmonkey website: picmonkey.com/

৭. BeFunky 

BeFunky অনলাইন টুল ব্যবহার করে আপনারা ফটো এডিটিং এবং গ্রাফিক ডিজাইনিং এর সাথে জড়িত অনেক কাজ করে নিতে পারবেন।

ইমেজ এডিটিং এর ক্ষেত্রে এই ওয়েবসাইটে আপনারা অনেক রকমের জরুরি টুলস পেয়ে যাবেন। যেমন, image cropping, resizing, edit photo, collage maker, exposure, beauty, sharpen image, smoothing, blur ইত্যাদি।

এছাড়া, বিভিন্ন templates রয়েছে যেগুলি banner এবং cards তৈরির ক্ষেত্রে ব্যবহার করতে পারবেন। তাছাড়া, আরো অনেক রকমের modern editing tools রয়েছে, যেগুলি কেবল pro বা paid user দের ব্যবহার করতে দেওয়া হবে।

এমনিতে, সাধারণ ফটো এডিটিং বা গ্রাফিক ডিজাইনিং এর ক্ষেত্রে, এই টুল ফ্রীতেই ব্যবহার করতে পারবেন।

>> BeFunky website: befunky.com

৮. PicsArt

অনলাইনে ছবি এডিট করা

PicsArt একটি অনেক শক্তিশালী অনলাইন ফটো এডিট করার সাইট হিসেবে জনপ্রিয়তা লাভ করছে।

এখানে আপনারা Free এবং Picsart Gold-এর দুটো প্ল্যান পাবেন। যদি আপনি Standard photo এবং video editing tools গুলি ব্যবহার করতে চান, সেক্ষেত্রে কেবল free plan ব্যবহার করলেই কাজ হয়ে যাবে।

এছাড়া, ফ্রি প্ল্যানে আপনারা হাজার হাজার free images এবং templates গুলিও পাবেন।

এখানে থাকা নানান AI tools গুলি কাজে লাগিয়ে অনেক সহজে এবং সঠিক ভাবে text-to-image generator এবং image background remover-এর মতো ফীচার গুলির লাভ নিতে পারবেন।

Features of PicsArt:

  • ফ্রি প্ল্যান ব্যবহার করা যাবে।
  • নানান AI tools গুলি পাবেন।
  • হাজার হাজার free images এবং templates পাবেন।
  • Text with AI Background-এর ফীচার।

Website: picsart.com

৯. Photopea: online photo editor

অনলাইনে ফটো এডিট

এটা খানিকটা অ্যাডভান্সড অনলাইন ফটো এডিটর ওয়েবসাইট যেখানে সম্পূর্ণ ফ্রীতে যেকোনো ছবি এডিট করা যাবে। তবে ফ্রি হলেও এখানে যেকোনো ছবি এডিট করার জন্য প্রত্যেক জরুরি ও শক্তিশালী টুলস গুলি অবশই পেয়ে যাবেন।

Crop tools, filters, layer, brush tool, eraser tool, ইত্যাদি এই ধরণের প্রত্যেক বেসিক টুলস গুলি ব্যবহার করা যাবে। এছাড়া, 3D, blur, distort, noise, sharpen, render, ইত্যাদি এই ধরণের অ্যাডভান্সড অপসন ও পাবেন।

তাই, বলতে গেলে অনলাইনে সরাসরি সম্পূর্ণ প্রফেশনাল ভাবে ছবি এডিটিং এবং গ্রাফিক্স ডিজাইনিং এর ক্ষেত্রে এই photopea website/tool-টি কিন্তু সেরা।

Website: photopea.com

১০. MockoFUN: Online Photo Editor

কোনো ধরণের software বা app install না করে সরাসরি নিজের computer বা mobile-এর ওয়েব ব্রাউজার থেকে সরাসরি ব্যবহার করতে পারবেন MockoFUN অনলাইন ফটো এডিটর।

এছাড়া, আপনি যদি এআই দিয়ে ছবি তৈরি করতে চাইছেন (AI generated images), সেক্ষেত্রে এই অনলাইন ইমেজ এডিটিং টুল আপনার কাজে লাগবে।

পছন্দমতো ফটো গুলি এডিট করার পাশাপাশি, আপনারা নানান গ্রাফিক্স ডিজাইনিং ওয়ার্ক গুলিও এখানে করে নিতে পারেন।

মানে, আপনি চাইলে নিজের Websites, Social Media বা সরাসরি Print করার ক্ষেত্রে এখানে গ্রাফিক্স ডিজাইনিং ও করা যাবে।

MockoFUN-এর অনলাইন ফটো এডিটরটি ব্যবহার করে নানান photo filters এবং blend modes গুলি ব্যবহার করে, আপনার যেকোনো ছবিকে বানিয়ে নিতে পারেন অধিক আকর্ষণীয়।

ছবিতে, photo mask, photo frames এবং borders, photo vignette, photo overlays, ইত্যাদি নানান ধরণের photo effects গুলি ব্যবহার করতে পারবেন।

Features of MockoFUN এডিটর:

  • অনলাইনে ফ্রীতে ছবি এডিট করা যায়।
  • Graphics design tools গুলি পাবেন।
  • Logo maker এবং online text editor-এর অপসন আছে।
  • নানান free এবং premium Photo Filters গুলি পাবেন।
  • AI Image Generator-এর অপসন আছে।

১১. VistaCreate

অনলাইনে ছবি এডিট করা

VistaCreate, কিছুটা Canva graphics designing tool-এর মতোই।

কেননা, এখানেও আপনারা, animated design, social media post, banner, marketing material, ইত্যাদি তৈরি এবং ডিসাইন করতে পারবেন।

Facebook post, YouTube Thumbnail, Instagram post, ইত্যাদি সবটাই নিজের পছন্দমতো ডিজাইন করে নিতে পারবেন এখানে।

VistaCreate-এর মধ্যে image edit করার নানান tools এবং options গুলি আপনারা পেয়ে যাবেন। যেমন, Image colors option, filters, ইত্যাদি।

এখানে যেই ফটো এডিটিং টুলটি রয়েছে, সেখানে নানান ধরণের অপসন এবং ফীচার গুলি যুক্ত রাখা হয়েছে।

যেমন, ছবিকে সার্কেল হিসেবে ক্রপ করা, একাধিক ছবি গুলিকে একসাথে জোড়া লাগানো, কনট্রাস্ট এবং ফিল্টার এপ্লাই, ছবিতে কার্ভ টেক্সট যুক্ত করা, ছবির ব্যাকগ্রাউন্ড রিমুভ করা ইত্যাদি।

VistaCreate-এর কিছু feature:

  • ফটো গ্রিড সহ নানান ইউনিক ফীচার পাবেন।
  • ছবি থেকে ব্যাকগ্রাউন্ড রিমুভ করা যায়।
  • ছবিতে ফ্রেম যুক্ত করা যায়।
  • Flip এবং rotate image-এর অপসন আছে।
  • সুন্দর সুন্দর ফটো ফিল্টার গুলি পাবেন।

১২. Stencil

অনলাইনে social media graphics তৈরি ও এডিট করার একটি সেরা ওয়েবসাইট হলো, Stencil।

আপনি যদি একজন blogger, business owners, বা social media marketers, সেক্ষেত্রে Stencil online photo editor আপনার অনেক কাজে আসতে পারে।

অনলাইনে ছবি এডিট করার এই ওয়েবসাইটে আপনারা প্রচুর royalty-free images, ১৩৫০ থেকেও অধিক টেম্পলেট, Google Web Fonts, Icons & Graphics, ইত্যাদি পেয়ে যাবেন, যেগুলির দ্বারা ছবি বা গ্রাফিক্স গুলিকে অনেক আকর্ষণীয় করে তুলতে পারবেন।

Stencil-এর কিছু feature:

  • Free এবং paid plan, দুটোই আছে।
  • 140+ Common presets গুলি আছে।
  • 3,100,000+ icons আছে।
  • Instant Image Resizing-এর অপসন পাবেন।
  • প্রচুর Image Filters গুলি পেয়ে যাবেন।

FAQ: অনলাইন ইমেজ এডিটর:

১. অনলাইনে ছবি এডিট কিভাবে করব?

যদি আপনি কোনো ধরণের সফটওয়্যার ছাড়া অনলাইনে যেকোনো ধরণের ছবি এডিট করতে চাইছেন, সেক্ষেত্রে উপরে বলে দেওয়া সেরা Online Image Editor Tool গুলি ব্যবহার করতে পারেন।

২. ছবি এডিট করার অনলাইন ওয়েবসাইট গুলো কি ফ্রি?

উপরে বলে দেওয়া ছবি এডিট করার বেশিরভাগ ওয়েবসাইট গুলি ফ্রীতে ব্যবহার করা যায়। Canva, MockoFUN, Fotor.com, Picozu.com, Photocat, Pixlr, Befunky.com, ইত্যাদি, এই ওয়েবসাইট গুলি ফ্রীতে ব্যবহার করে ফটো এডিট করতে পারবেন।

৩. ছবি এডিট করার সেরা ফ্রি সাইট কোনটি?

আমার হিসেবে, অনলাইনে যেকোনো ধরণের ছবিকে এডিট বা ডিজাইন করার সব থেকে সেরা ওয়েবসাইটটি হলো, CANVA, MockoFUN এবং Pixlr।

আমাদের শেষ কথা,

তাহলে বন্ধুরা, যেকোনো ছবিকে এডিট করে সেটি অধিক আকর্ষণীয় করে তোলার জন্য, ছবিতে নানান এফেক্ট, টেক্সট, ব্যাকগ্রাউন্ড ইত্যাদি যুক্ত করার জন্য এবং ছবি ডিজাইন করার জন্য আপনারা উপরে বলে দেওয়া এই সেরা ছবি এডিট করার ওয়েবসাইট গুলি ব্যবহার করতে পারবেন।

এদের মধ্যে পত্তেক সাইট গুলি আপনারা ফ্রীতে ব্যবহার করতে পারবেন। তবে, ফ্রীতে অ্যাডভান্সড ইমেজ এডিটিং টুলস গুলি ব্যবহার করার জন্য আপনারা Canva নাহলে pixlr ব্যবহার করার পরামর্শ আমি আপনাদের দিবো।

শেষে আশা করছি, আজকেই এই আর্টিকেল যেখানে আমি “best online photo editing websites” ৯টির নাম বলেছি, আপনাদের কাজে অবশই আসবে।

অবশই পড়ুন: 

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error:
Scroll to Top