কিভাবে ইউটিউব চ্যানেল তৈরি করবেন ? ইউটিউব চ্যানেল খোলার নিয়ম

আজ, অনলাইন ইন্টারনেটে টাকা আয় করার সবচেয়ে সহজ এবং লাভজনক উপায় হলো ইউটিউব (YouTube)। হে, ইউটিউবে চ্যানেল তৈরি কোরে তাতে ভিডিও আপলোড দিয়ে টাকা আয় করাটা অবশই অনেক সহজ কথা। আজ অনেকেই, এই YouTube business করে মাসে লক্ষ লক্ষ টাকা আয় করছেন।

এবং,আপনি যদি এই অনলাইন ব্যবসা ঘরে বসে করতে চান, তাহলে আগে YouTube চ্যানেল কি এবং কিভাবে চ্যানেল তৈরি করবেন সেটা জেনেনিতে হবে। অবশই আপনি এই আর্টিকেলে YouTube চ্যানেল কি এবং ইউটিউব চ্যানেল খোলার নিয়ম কি সেটা জেনেনিতে পারবেন।

ইউটিউব চ্যানেল খোলার নিয়ম
How to create a YouTube channel ?

ইউটিউব চ্যানেল কি এবং কিভাবে চ্যানেল তৈরি করবেন ?

কিভাবে চ্যানেল খোলা যায় সেটা আমি আপনাদের অবশই বলবো। কিন্তু, চলেন আগে YouTube এর চ্যানেল কি সেটা জেনেনেই।

আসলে YouTube গুগলের একটি সার্ভিস (service) বা ওয়েবসাইট। এই ওয়েবসাইট আমাদের ফ্রীতে কোনো টাকা না নিয়ে অনেক রকমের ভিডিও অনলাইন মোবাইল বা কম্পিউটারে দেখতে দেয়। এখানে আপনি সবরকমের ভিডিও, গান, সিনেমা, সিরিয়েল, টিউটোরিয়াল ভিডিও এবং অনেক অনেক রকমের ভিডিও আপনি দেখতে পারবেন।

আর, সোজাসোজি ভাবে বলতেগেলে YouTube হলো এমন একটি ওয়েবসাইট যে পুরো দুনিয়াতে সবাইকে ফ্রীতে অনেক রকমের ভিডিও বা সিনেমা অনলাইন লাইভ (Live) দেখতে দেয়।

এখন, ইউটিউবে যেই ভিডিওগুলি আপ্নে দেখেন সেগুলি সেখানে কিভাবে আসে ? কে YouTube এ সেই ভিডিওগুলি আপলোড করে ?

এই প্রশ্নোর উত্তর হলো, “আমার আর আপনার মতো লোকেরা“. হে, আমার এবং আপনার মতো লোকেরা ইউটিউবে ভিডিও আপলোড করেন YouTube চ্যানেলের মাধ্যমে।

YouTube এর একটি চ্যানেল একটি ইউটিউব প্রোফাইলের মতন। যেরকম আমরা ফেসবুক বা টুইটারে প্রোফাইল তৈরি করি সেরকম ইউটিউবে চ্যানেল খোলা মানে একটি ইউটিউব প্রোফাইল বানানো।

একটি ইউটিউবের চ্যানেল বানানোর পর আপনার একটি চ্যানেলের নাম থাকবে এবং সেই চ্যানেলের নামের বা প্রোফাইলের মাধ্যমে আপনি ইউটিউবে নিজের বানানো ভিডিও আপলোড দিতে পারবেন এবং লোকেদের সেই ভিডিও দেখাতে পারবেন। লোকেরা আপনার চ্যানেলে গিয়ে আপনার আপলোড করা সবকয়টা ভিডিও দেখেনিতে পারবে।

তাহলে সোজাসোজি ভাবে বললে, একটি YouTube channel হলো আপনার একটি YouTube প্রোফাইলের মতো যার দ্বারা আপনি নিজের বানানো ভিডিও YouTube এ আপলোড করতে পারবেন এবং আপনার সেই চ্যানেলের মাধ্যমে লোকেরা আপনার আপলোড করা ভিডিও দেখতেও পারবেন।

Also read

আশাকরি আপনি “YouTube channel কি” সেটা অবশই বুঝেগেছেন। তাহলে চলেন, এখন আমরা নিচে ইউটিউব চ্যানেল খোলার নিয়ম কি সেটা জেনেনেই।

কিভাবে ইউটিউব চ্যানেল তৈরি করবেন ? জানেন চ্যানেল খোলার স্টেপ বাই স্টেপ নিয়ম

ইউটিউবে একটি চ্যানেল বানানোর জন্য সবচে আগে আপনার প্রয়োজন হবে একটি গুগল  জিমেইল একাউন্টের। হে, YouTube গুগলের একটি service বা product আর তাই ইউটিউবে signin বা লগইন করার জন্য আপনার একটি জিমেইল আইডি প্রয়োজন হবে।

আপনার যদি জিমেইল আইডি নেই, তাহলে জিমেইলে একটি ফ্রি ইমেইল একাউন্ট কিভাবে বানাবেন এই আর্টিকেলের মাধ্যমে জেনেনিন।

তাহলে চলেন এখন আমরা নিচে ইউটিউবে চ্যানেল বানানোর প্রক্রিয়া স্টেপ বাই স্টেপ জেনেনেই।

১. ইউটিউবে লগইন বা signin করুন

সবচে আগেই আপনাকে যেতে হবে ইউটিউবের ওয়েবসাইটে। ইউটিউবের ওয়েবসাইটে গিয়ে একদম ওপরে ডানদিকে আপনি “sign in” বলে একটি লিংক দেখবেন। আপনি সেই signin button এ ক্লিক করুন।

২. নিজের gmail account দিয়ে লগইন করুন

এখন YouTube এ গিয়ে Sign in এ ক্লিক করার পর আপনি একটি web page দেখবেন যেখানে আপনাকে নিজের Google বা Gmail একাউন্টের Id এবং password দিয়ে লগইন করতে বলা হবে। আমি আগেই বলেছি যে, YouTube google company র একটি সার্ভিস এবং তাই YouTube এ লগইন করতে আপনার নিজের জিমেইল একাউন্টের ব্যবহার করতে হবে।

যেরকম আপনি ওপরে ছবিটি দেখছেন ঠিক তেমন আপনার কম্পিউটার বা ল্যাপটপ স্ক্রিনে আসবে এবং আপনাকে সরাসরি নিজের Gmail আইডি এবং পাসওয়ার্ড টাইপ করে “Next” button এ ক্লিক করতে হবে।

 ৩. YouTube চ্যানেল তৈরি করুন

নিজের জিমেইল একাউন্টের আইডি এবং পাসওয়ার্ড দিয়ে ইউটিউবে লগইন করার পর আপনি YouTube dashboard এ লগইন হয়ে যাবেন।

এখন আপনাকে চ্যানেল খোলার জন্য সবচে আগেই YouTube dashboard এর সবচে ওপরে ডানদিকে শেষে থাকা ছোট্ট “profile Icon” টিতে ক্লিক করতে হবে। ভালোকরে জানার জন্য আপনি নিচে দেয়া ছবিটি দেখুন।

এখন, YouTube profile icon এ ক্লিক করার পর আপনি কিছু options দেখবেন। এই option গুলির মধ্যে সোজাসোজি “My channel” অপশনে ক্লিক করুন।

 

ইউটিউবে চ্যানেল অপশনে যান
Go YouTube profile icon and My channel.

এখন, My channel অপশনে ক্লিক করার পর আপনি দেখবেন আপনাকে YouTube একটি পেজ দেখাবে যেখানে লেখা থাকবে “Use YouTube as” লেখা থাকবে এবং তার নিচে দুটো ছোট ছোট বাক্স দেয়া থাকবে। সেই ছোট্ট বাক্স গুলিতে আপনাকে নিজের চ্যানেলের জন্য নাম লিখে দিতে হবে।

Select Channel name .

মানে, যেরকম ওপরে ছবিটিতে আপনি দেখছেন আমরা বাক্সটিতে “বাংলা টেকনোলজি” লিখেছি। কারণ আমরা আমাদের ইউটিউবের চ্যানেলের নাম বাংলা টেকনোলজি রাখতে চেয়েছি।

তাই, ঠিক তেমন কোরে আপনি নিজের চ্যানেলের নাম সেই দুটো বাক্সতে লিখুন যা আপনি দিতে চান এবং নিচে “Create Channel” এ ক্লিক করুন।

Congratulations, দেখো সোজাসোজি বলতে গেলে আপনার চ্যানেল তৈরি হয়েগেছে এবং আপনি এখন নিজের চ্যানেল edit, design বা তাতে ভিডিও আপলোড করতে পারবেন।

Create channel এ ক্লিক করার পর আপনি পরের পেজে দুটো অপশন দেখবেন। একটি হলো “Creator studio” এবং আরেকটি “Customize channel“.

ইউটিউব চ্যানেল বানানো হয়েগেছে

Customize channel অপশনে গিয়ে আপনি নিজের ইউটিউব চ্যানেল customize করতে পারবেন। মানে, আপনি নিজের চ্যানেলে প্রোফাইল পিকচার, background ছবি (Channel art), description, About এরকম ধরণের জিনিস লাগাতে এবং আপডেট করতে পারবেন।

Creator studio অপশনে গিয়ে আপনি নিজের চ্যানেলের জন্য অনেক রকমের সেটিংস (settings) করতে পারবেন। যেমন channel settings, video manager, আপনার চ্যানেলে কয়টা subscribers হলো, ভিডিওতে কতটা views (দেখা) হয়েছে।

আপনি এই দুটো অপশনে নিজে গেলেই বুঝতে পারবেন যে অপশন গুলি দিয়ে  আপনি কি কি করতে পারবেন। Customize channel এবং Creator studio এই দুটো অপশনে পরেদিয়ে যাওয়ার জন্য আপনি YouTube dashboard এর একদম ওপরে ডানদিকে থাকা profile icon এ ক্লিক করুন। এতে আপনি creator studio অপসন দেখবেন।

যদি আপনি Customize channel অপশনে যেতে চান, তাহলে creator studio তে গিয়ে “View channel” এ ক্লিক করুন।

৪. ইউটিউবে ভিডিও কিভাবে আপলোড করবেন ?

ইউটিউবে নিজের একটি চ্যানেল বানানোর পর আপনার অশোক কাজটা হলো “নিজের চ্যানেলে ভিডিও আপলোড করা”. কারণ, যখন আপনি ভিডিও আপলোড করবেন তখন লোকেরা আপনার চ্যানেলে আসবে এবং আপনার আপলোড করা ভিডিও দেখবেন। আসলে কেবল তখনই আপনি নিজের ভিডিওতে বিজ্ঞাপন দেখিয়ে টাকা আয় করা আরম্ভ করতে পারবেন।

তাই, চ্যানেল বানিয়ে নেয়ার পর ভালো ভালো ভিডিও যেগুলি নাকি লোকেরা দেখে ভালো পাবেন এবং লোকেরা দেখতে চান সেরকম ভিডিও নিজের চ্যানেলে আপলোড করবেন। আর, চ্যানেলে ভিডিও আপলোড করাটা অনেকটাই সোজা।

YouTube চ্যানেল বানানোর পর তাতে ভিডিও আপলোড করার জন্য আপনি প্রথমে YouTube এর একদম ওপরে থাকা “Video icon”  এ আপনার ক্লিক করতে হবে।

Video icon এ ক্লিক করার পর আপনি দুটো অপশন দেখবেন “Upload a video” এবং “Go live” . এখন আপনাকে সোজাসোজি “Upload a video” তে ক্লিক করে নিন।

Upload a video তে ক্লিক করার পর এখন পরের পেজে আপনি ভিডিও আপলোড করার জন্য অপসন দেখবেন। আপনি “select file to upload” বলে একটি জায়গা বা লেখা দেখবেন।

select video to upload

বাস, সোজাসোজি সেখানে ক্লিক করুন এবং নিজের কম্পিউটার বা ল্যাপটপের থেকে ভিডিও সিলেক্ট করে তাকে আপলোড করুন।

Also read YouTube থেকে ভিডিও কিভাবে ডাউনলোড করবেন ?

তাহলে friends, আশাকরি আপনারা ইউটিউবে ভিডিও কিভাবে আপলোড করবেন সেটাও ভালোকরে বুঝে গেছেন। আমি আপনাদের ইউটিউবে চ্যানেল বানানোর নিয়ম এবং চ্যানেলে ভিডিও কিভাবে আপলোড করবেন দুটো জিনিস বুঝিয়ে বলেছি। যদি আপনাদের কোনোরকমের অসুবিধা হয়ে থাকে তাহলে আমাকে নিচে কমেন্ট করুন বা আমাদের facebook পেজ নিজের প্রশ্ন লিখে পোস্ট করুন।

৫. নিজের ইউটিউবের চ্যানেল verify করুন

এখন, আমাদের আরো একটি অনেক জরুরি কাজ বাকি রয়েছে। সেটা হলো, channel verification. আপনি অবশই খেয়াল রাখবেন যে, কেবল চ্যানেল বানিয়ে তাতে ভিডিও আপলোড করলেই হবেনা। নিজের চ্যানেল থেকে টাকা আয় করার জন্য এবং আরো অনেক রকমের সুবিধা এবং অপশনের জন্য আপনাকে নিজের বানানো চ্যানেল verify অবশই করতে হবে।

YouTube চ্যানেল ভেরিফাই করার জন্য আপনি নিচে দেয়া স্টেপ গুলো ভালো করে বুঝে নিন।

স্টেপ ১.

সবচে আগে আপনার যেতে হবে creator studio অপশনে আর তার জন্য আপনি নিজের YouTube dashboard থেকে ওপরে ডানদিকে থাকা “profile icon” এ ক্লিক করুন। প্রোফাইল আইকনে ক্লিক করার পর আপনি creator studio অপসন দেখতে পাবেন।

স্টেপ ২.

এখন creator studio পেজ যাওয়ার পর আপনি বামদিকে অনেকগুলো options দেখবেন। আপনাকে সোজাসোজি বামদিকের থেকে “Channel” অপশনে ক্লিক করতে হবে।

স্টেপ ৩.

এখন চ্যানেলে ক্লিক করার পর সেই পেজে আপনি নিজের ইউটিউবের চ্যানেলের নাম দেখবেন এবং তার নিচে “Verify” বলে একটি লিংক বা লেখা দেখবেন। আপনি সোজাসোজি সেই “verify” লিংকে ক্লিক করুন।

ইউটিউব চ্যানেল ভেরিফাই করুন

স্টেপ ৪.

এখন verify লিংকে ক্লিক করার পর আপনি পরে “account verification” পেজ দেখবেন।

একাউন্ট ভেরিফিকেশন পেজে আপনি প্রথমে নিজের দেশ (country) সিলেক্ট করে তারপর “text me the verification code” অপশনে ক্লিক করুন। এরপর নিচে মোবাইল নম্বর বক্সে নিজের মোবাইল নম্বর দিয়ে “submit” অপশনে ক্লিক করুন।

স্টেপ ৫.

এখন, submit অপশনে ক্লিক করার পর আপনার দেয়া মোবাইল নম্বরে একটি verification code sms এর মাধ্যমে আপনার মোবাইলে যাবে। আপনাকে সেই verification code ভালোকরে দেখে YouTube মোবাইল নম্বর verification বক্সে দিতে হবে। এই বাক্সটি আপনি ওপরে স্টেপ ৪ এ submit ক্লিক করার পর দেখতে পাবেন।

নিজের মোবাইলে আশা ভেরিফিকেশন কোড ভালোকরে নম্বর ভেরিফিকেশন বক্সে দিয়ে ok/verify করার পর আপনার ইউটিউব চ্যানেল পুরোপুরি ভাবে active এবং ভেরিফাই হয়ে যাবে।

এখন আপনি “continue” অপশনে ক্লিক করে নিজের চ্যানেল ব্যবহার করতে পারবেন, চ্যানেলে ভিডিও আপলোড করতে পারবেন এবং চ্যানেল ও ভিডিও থেকে টাকা আয় করার জন্য এপলাই (apply) করতে পারবেন।

তাহলে বন্ধুরা, আশাকরি আপনারা ইউটিউব চ্যানেল খোলার নিয়ম, চ্যানেলে ভিডিও কিভাবে আপলোড করবেন এবং চ্যানেল verify কিভাবে করবেন সবটাই আপনারা ভালো করে বুঝে গেছেন। কোনো প্রশ্ন থাকলে অবশই নিচে কমেন্ট করবেন।

0 Shares

A Blogger & Author ! Rahul Das is recognized as a technology Blogger who founded "BanglaTech" & "SidhaJawab". He is passionate about blogging. ❤️

109 thoughts on “কিভাবে ইউটিউব চ্যানেল তৈরি করবেন ? ইউটিউব চ্যানেল খোলার নিয়ম”

  1. শেষে একটা কথা বলেছেন আপনি,যে চ্যানেল ও ভিডিও থেকে টাকা আয় করার জন্য এপলাই (apply) করতে পারবেন। কিন্তু apply কিভাবে করতে হয় তা বলেন নি

    1. এই বিষয়ে অন্য একটি আর্টিকেল রয়েছে। YouTube category তে দেখুন।

    1. আগে কাজ শুরু করুন, টাকার কথা পরে ভাববেন। সেগুলো অনেক পরের কথা। আগে subscriber এবং views বাড়ানোর চেষ্টা করুন।

  2. রাজকুমার রায়

    দাদা যারা বড় ইউটিউবার হয় ,আর তারা যে ভাডিও তৈরি করে তাতে দেখা যায় তারা ভিডিওর পিছন থেকে কথা বলে এবং ভিডিওটিতে ছবি ও ভিডিও দুইটাই থাকে।এইরকম ভিডিও কী মোবাইল দিয়ে তৈরি সম্ভব?আর কী করে তৈরি সম্ভব একটু বলবেন দাদা।

    1. আপনি কি বলতে চাইলে আমি ঠিক বুঝলামনা ভাই।
      তবে, কম্পিউটারে বা মোবাইলে কিছু বিশেষ software রয়েছে, যেগুলো ব্যবহার করে বিভিন্ন রকমের ভিডিও তৈরি করা যায়।

  3. ভাই একটু help করেন। কিভাবে মোবাইল ফোন দিয়ে চ্যানেল খুলবো

    1. chrome browser ওপেন করে desktop mode সিলেক্ট করে মোবাইল থেকে কম্পিউটারের মতো ইউটিউবের চ্যানেল তৈরি করতে পারবেন।

  4. একাউন্ট না দিলে টাকা কিবাবে আসবে। আর একাউন্ট কিবাবে দিব।

    1. ভাই, adsense monetization পাওয়ার পর আপনি bank যোগ করতে পারবেন। সেটা অনেক পরে। প্রথমে monetization এর জন্যে এপ্রোভাল নিয়ে নিন।

    1. ভাই আপনার bank account টাকা নিজে নিজে পাঠিয়ে দেওয়া হবে, যখন আপনার ১০০ dollar জমা হয়ে যাবে।

  5. Adv. Abdul Khalik

    দাদা আমি ২৩ মে ২০১৮ তে ইউটিউব চ্যানেল খুলি । কিন্তু আমি ভিডিও আপলোড করা শুরু করেছি এপ্রিল’২০২০ হতে । আমার চ্যানেল কি মনিটাইজেশন হবে ?? প্লিজ বলবেন ।

    1. অবশই হবে। চ্যানেলে, ১০০০ subscriber এবং ৪০০০ মিনিটের ওয়াচ টাইম হয়ে গেলে আপনি monetization এর জন্যে এপলাই করতে পারবেন।

  6. দাদা মোবাইলেও কি এই নিয়মে চ্যানেল খুলতে হয়.?

    1. কষ্ট না করে কিছু হয়না ভাই। ১ মিলিয়ন পরে ভাববেন, আগে ভালো ভালো ভিডিও তৈরি করে আপলোড করুন। সময় লাগবে তবে কাজে মন থাকলে হয়ে যাবে।

  7. রাবিন্দ্রানাথ ঘোষ

    চেষ্টা করছি দাদা । উপকৃত হলাম । ধন্যবাদ ।

    1. চেষ্টা চালিয়ে যান, হতাশ হবেননা। সফলতা একদিন হলেও আপনার কাছে আসবেই।

    2. দাদা আদাব।
      দাদা চ্যানেল খোলার পরে মাই চ্যানেল অপশন শো করেনা শো করে ইউর চ্যানেল। এটা কেনো হয়? আর চ্যানেলের নাম চেঞ্জ করবো কিভাবে প্লিজ জানাবেন।
      আদাব দাদা।

  8. Miraj Hasan Mahin

    মোবাইল দিয়ে কি টাকা আয় করা যাবে না??

    1. এমনিতে কিছু উপায় রয়েছে, তবে সেকুলি বেশি কাজের নয়।

  9. ও দাদা যা পড়লাম কোনোখানে তো ব্যাংক একাউন্ট নাম্বার বা বিকাশের কথা দেখি নাই তো টাকা আসবে কি করে টাকা আসার মাধ্যম কি

    1. ভাই আর্টিকেলের title এ লিখা রয়েছে, এখানে কেবল YouTube চ্যানেল খোলার নিয়ম বলা হয়েছে।

  10. ইব্রাহীম

    ইউটিউব থেকে টাকা ড্র করার জন্য আপনার একটি টিউটোরিয়াল আশা করছি।

    1. ভাই, ইউটিউবের থেকে টাকা withdraw করার তেমন নিয়ম নেই।
      আপনার adsense account এ ১০০ ডলার হয়ে গেলে, নিজে নিজে টাকা আপনার দেওয়া ব্যাঙ্ক একাউন্টে এসে যাবে।

  11. মুখতলা টিভি

    মোবাইল দিয়ে খুলেছি কিন্তু সার্চ করলে আসে না?

  12. এই বিষয় নিয়ে ভিডিও বানালে আমরা ভালো করে বুজতে পারব

  13. এস এ রাসেল

    ভাই ভাললাগলো লেখাটি। তথাপি একটি কথা ভাই টাইটেল আর ড্রেসক্রিপশন কোথায় লিখব কি ভাবে লিখব তা যদি একটু চিত্র সহকারে দেখিয়ে দিতেন।

    1. ভিডিও আপলোড হওয়ার সময় নিচের দিগে option দুটি দেখতে পারবেন।

  14. আব্দুল্লাহ আল মুজাহিদ

    ভাই চ্যানেল খুলছি তবে খুজে পাচ্ছি না..চ্যানেল সার্চ করলেও পাওয়া যায় না..এরকমটা কেন হচ্ছে?

    1. মোবাইলে না কম্পিউটারে , কোনখানে ব্যবহার করছেন ?

  15. Taheruzzaman Tohin

    Android phn দিয়ে কি ইউটিউব চ্যানেল খুলা যাই না

    1. না, একটি ফ্রি জিমেইল একাউন্ট থাকলেই যথেষ্ট।

  16. আমি এই অপশন করেও, ভেরিফাই অপশন পেলাম না। তাহলে কি ১০০% ল্যাপটপ বা ডেক্সটপ লাগবে নাকি?

    1. ভেরিফিকেশন এর জন্যে ল্যাপটপ বা কম্পিউটার ব্যবহার করতে হবে। তবে, মোবাইলে গুগল ক্রোম ব্রাউসার ওপেন করে “desktop mode” করেও এই প্রক্রিয়া করা সম্ভব।

  17. শফি উদ্দিন

    ভাই সবই তো বুঝলাম .কিন্তূ ইউটুব থেকে আয় করার উপাই কী ?

  18. ইউটিউব থেকে পেমেন্ট কিভাবে সংগ্রহ করব, তা যদি বলতেন,

    1. Google adsense এর মাধ্যমে আয় করা টাকা আপনারা নিজের bank account এর মাধ্যমে তুলে নিতে পারবেন। আপনার আয় করা টাকা ১০০ ডলার হয়ে যাওয়ার পর নিজে নিজেই আপনার দেয়া ব্যাংক একাউন্টে টাকা এসে যাবে।

    1. চ্যানেল টি ডিসাইন করুন এবং তারপর এক এক করে ভালো ভালো ভিডিও তৈরি করে আপলোড করুন।

  19. আমি নুতন চ্যানেল খুলেছি তবে প্রফাইল পিক আর কভাব পিক কিছুতেই দিতে পারছি না, কিভাবে দেয়া যাবে,,,,

    1. আপনি মোবাইল না কম্পিউটার, কোনটা ব্যবহার করছে।

  20. ভাই চ্যনেলতো খুললাম তবে ভিডিও আপলোড দিতে কি বার বার ক্রম ব্রাউযারে যেতে হবে নাকি এপ দিয়েই হবে?

    #মোবাইর ইউজার

    1. অবশই মোবাইল APP ব্যবহার করে ভিডিও আপলোড করতে পারবেন।

  21. রিতা কবির

    ভাই আসালামুআলাইকুম ভাই চ্যানেল টা তো খুলছে এখন তো কিছুই করতে পারছিনা দয়াকরে একটু হেল্প করবেন

    1. ইউটিউবে ভিডিও দেখে সবটা শিখে নিতে পারবেন। নাহলে আমাকে বলুন আপনার সমস্যা।

  22. রায়হান

    আসসালামু আলাইকুম ভাইয়া আশা করি ভাল আছেন আমার নাম রায়হান আমি একজন কুয়েত প্রবাসী আমি পার্সোনাল ভাবে আপনার সাথে একটু কথা বলতে চাই আশা করি আপনি আমাকে একটু সময় দিবেন প্লিজ ভাইয়া আমি নিচে আমার ইমু নাম্বারটা দিচ্ছি আপনি একটু আমার সাথে যোগাযোগ করেন প্লিজ।

  23. আমি একটি চ্যানেল খুলেছিল কিন্তু YouTube তো দেখতে পারিনা ভিডিও আপলোড করতে ছি একটু সহযোগিতা করবেন পিলিছ

    1. আপনি কি ব্যবহার করছেন ? কম্পিউটার না ল্যাপটপ ?

  24. Md ashikur rahman

    ভাই আমি একটা চ্যানেল ওপেন করেসি এবং ভিডিও আপলোড দিয়েছি কিন্তু একটাও ভিও হইনি।
    তাহলে কি আমার ভিডিও কারও কাছে যাচ্ছে না বা ঠিকমতো আপলোড হইনি।

    1. সব ঠিক আছে। তবে, মনে রাখবেন ইউটিউবে সফলতা পেতে হলে এগুলি না ভেবে দিনের পর দিন ভালো ভালো ভিডিও বানিয়ে আপলোড দিতে হবে।

  25. মোঃ মিজানুর রহমান মল্লিক

    একজন সরকারি স্কুলের শিক্ষক নিজের সম্পাদনায় শিক্ষণীয় ভিডিও আপলোড করার জন্য ইউটিউব চ্যানেল খুলতে পারবে কিনা?

  26. কম্পিউটার অথবা ল্যাপটপ ছাড়া কোনো স্মাট ফোন দিয়ে কি ইউটিউব চ্যানেল তৈরী করা যায়?

    1. অবশই যাবে, তবে স্মার্টফোনে chrome browser ব্যবহার কোরে তাতে desktop mode ব্যবহার করলে,সহজেই চ্যানেল তৈরি করতে পারবেন।

  27. font পরিবর্তন করে দিলাম। ভাই, আমি settings এ গিয়ে বাম দিকে my channel এ ক্লিক করার
    পর আমার home page টি কয়েক সেকেন্ডের জন্য এসে চলে যায় এবং দেখায় organised your channel. কিভাবে চ্যানেল organised করব।

    1. আপনি মনেহয় মোবাইলে করছেন তাই হচ্ছেনা। কম্পিউটার বা ল্যাপটপে চেষ্টা করুন।

  28. হাফেজ আব্দুল আলিম

    ভাই আপনার লেখা পড়ে সবাই টাকা কামানোর জন্য পাগল হয়ে গিয়েছে,,,তাড়াতারি এই বিষয়ে ক্লিয়ার করে দিন

    1. অবশই, তবে আমি বলে দেয়, এই ব্লগে আমি এখন থেকে কেবল ব্লগ ও ইউটিউবের বিষয়েই লিখবো। এতে, অনলাইন টাকা আয়ের বিষয়ে আপনারা অনেক কিছুই জেনে যাবেন।

  29. Jahedur Rahman

    ভাই মোবাইল থেকে চ্যানেল তৈরি করা যায় নাকি। কম্পিউটার ল্যাপটপ লাগবেই।
    আর কি পরিমাণ ভিউ হলে আমার টাকা ইনকাম হবে।

    1. ইউটিউবের থেকে আয় জন্য আপনার মোবাইল দিয়ে কাজ করলে হবেনা। একেবারেই ভালো ভাবে কাজ করাটা অনেক জরুরি। কম দামের একটি ল্যাপটপ কিনে কাজ শুরু করুন।

  30. স্বাধীন

    উপরের সব গুলোই তো আমি করছি মোনেটিজেশন এর কাজ তো দেন নাই…..এটা ওন করবো কিভাবে

  31. আমি যদি আমার নিজের জানা বিষয়গুলো সম্পর্কে মানুষকে শিখাই… তাহলে তো ধরুন পঞ্চাশটার বেশি ভিডিও বানাতে পারব না… কিন্তু যদি.. বিভিন্ন ব্রেকিং নিউজ.. ছবির ভালো ভালো অংশ নাটকের ভালো অংশ এগুলো কেটে নিয়ে আপলোড দেই .. এই দুইটা কি এক চ্যানেলে করা যাবে না… তাছাড়া আমি এখন ভাবছি এই দুইটা বিষয়ের জন্য দুইটা চ্যানেল খুলবো এতে দয়া করে আপনি আপনার মতামত টা আমাকে জানাবেন….

  32. ভাই আমি জানতে চাচ্ছি যে আমি যদি একটি চ্যানেল খুলি তাহলে সেই চ্যালেনে কি যে কোন প্রকার… মানে সব ধরনের ভিডিও আপলোড করতে পারব যেমন.. 1..বিভিন্ন নতুন নতুন অ্যাপ সম্পর্কে মানুষকে ধারণা দিব…2… সব ধরনের নাটকের সুন্দর সুন্দর অংশটা আপলোড করব. আবার ছবির রোমান্টিক সিন গুলো আপলোড করব… আবার ভালো ভালো শিল্পীর গান ভালো ভালো অনুষ্ঠান…. তারমানে আমি বোঝাতে চাচ্ছি যে আমি সব ধরনের টপিক নিয়ে ভিডিও আপলোড দিব… আমাকে অনুগ্রহ করে বলেন যে… যে কোন এক বিষয় নিয়ে ভিডিও আপলোড দেওয়া ভালো নাকি সব ধরনের ভিডিও যেগুলো ভালো মানের সেগুলো আপলোড দেওয়া বেশি ভালো…… আর যদি সব ধরনের ভিডিও আপলোড দেয়াটা ভালো না হয় তাহলে সেটা কেন

    1. দেখুন, ইউটিউবের চ্যানেলে অধিক SUBSCRIBERS পাওয়া মানেই সফলতা পাওয়া। তাই, চ্যানেলে অধিক subscribers পাওয়ার জন্য আপনার যেকোনো একটি টপিক/সাবজেক্ট niche নিয়ে চ্যানেল বানাতে হবে. আপনি যদি টেকনোলজি বিষয়ে ভালো পান, তাহলে সব ভিডিও টেকনোলজি সাথে জড়িত থাকতে হবে.নাহলে, আপনার subscribers রা আপনার চ্যানেলে রুচি রাখবেননা এবং এতে তারা channel unsubscribe করার সুযোগ অনেক। তাই,সফলতা পাওয়ার জন্য, আপনার একটি টার্গেটেড বিষয় নিয়ে চ্যানেল বানানোটা অনেক জরুরি। বাকি আপনার ইচ্ছা।

  33. আবু রায়হান

    ভাই ব্যাংক অ্যাকাউন্ট নাম্বার পরে বসালে চলবে না ভেরিফাই করার সময় ই দিতে হবে আর কোন ব্যাংক এ অ্যাকাউন্ট খুলতে হবে

    1. ব্যাঙ্ক একাউন্ট পরে দিকেও চলবে। আপনি এমন ব্যাংকে একাউন্ট খুলুন যার swift code আছে এবং যেই ব্যাঙ্ক international payment accept করে।

  34. মোঃ কামরুল হাসান

    বিকাশের মাধ্যমে হবেনা

    1. ইউটিউবের থেকে টাকা আয় করার জন্য একটি ব্যাঙ্ক একাউন্ট থাকা জরুরি।

        1. যেকোনো ব্যাঙ্ক ব্যবহার করতে পারবেন। তবে ব্যাংকার একটি SWIFT কোড থাকতেই হবে।

  35. শেখ সুজন

    ভাই সবই বুঝলাম,এখন কথা হচ্ছে,
    ভিডিও আপলোড করার পরে টাকা ইনকামের জন্য কিভাবে আবেদন করবো

    1. যখন আপনার চ্যানেলে কিছু subscribers হয়ে যাবে তখন আপনি youtube monetization এর জন্য apply করতে পারবেন। একবার আপনার চ্যানেল approve হয়ে গেলে তখন আপনার উওলোড করা ভিডিওতে google adsense এর দ্বারা বিজ্ঞাপন দেখানো হইবে এবং তার জন্য আপনাকে টাকা দেওয়া হবে।

  36. খুব ভাল লিখছেন।।ভাই সব বুঝলাম তবে video view এর টাকা আমি কিভাব পাব।।।

    1. সেটা আপনাকে আপনার ব্যাঙ্ক একাউন্টে দিয়ে দেয়া হবে। তবে এগুলি পরের কথা.আগে একটি ভালো টপিক নিয়ে ভিডিও বানানো শুরু করুন এবং আপলোড দিন. একবার subscribers অনেক হয়ে গেলে তখন টাকা আয় করার কথা ভাবুন। আর আমি তো আছি। আমাকে জিগেশ করে নিবেন।

  37. মিজান

    স্যার ভেরিফিকেশনে তো শুধু নম্বর দিয়েছি ব্যাংকের a/c নম্বর তো দেই নি।

  38. সোহাগ

    কিন্তু টাকা ক্যাশ করব কিভাবে?? টাকা কি বিকাশে আসবে নাকি ব্যাংক একাউন্টে?

  39. Sahedul Hoq Sarker

    স্যার সব পড়লাম সুবিধা, ইউটিউবে অসুবিধা কি?

    1. আপনার চ্যানেল এখন নতুন, তাই ইউটিউবে দেখানোর মতো তার position এখনো হয়নাই। তাই, আপনি রেগুলার ভালো ভালো ভিডিও আপলোড করুন আস্তে আস্তে চ্যানেলের রেপুটেশন বাড়বে এবং আপনার চ্যানেল ইউটিউবে দেখাবে।

      1. আচ্ছা,,এটা কি মোবাইলে হয় না,যদি হয়ে থাকে তাহলে আমি তো আমার চ্যানেল এ গিয়ে ক্রিয়েটর স্টুডিও পাইনা,,ভেরিফাই করার জন্য।?

        1. কম্পিউটার বা ল্যাপটপ ভার্শনে করতে হবে। যদি মোবাইলে করতে চাঁন, তাহলে chrome browser এ গিয়ে “Desktop mode” এ গিয়েও মোবাইল থেকে ভেরিফাই করতে পারবেন।

          1. আমি Photoshop মেনুফ্যালেশন ছবি কিভাবে বানানো যাই এই বিষয় নিয়ে ভিডিও বানাবো। ভিডিও রেকডিং এর জন্য ফাস্টটিউন সফটওয়্যার এটা ব্যবহার কিরলে কি ভালো হবে? আমার ভালো কোয়ালিটি ভিডিও লাগবে তো তাই। ভিডিও এডিটিং এর জন্য এডোবি প্রিমিয়ার ইউস করবো। আমাকে আপনার ফেসবুকের লিংক টা দিলে ভালো হয়।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error:
Scroll to Top
Copy link
Powered by Social Snap