Firewall কি ? ফায়ারওয়াল কেন ব্যবহার করা হয় এবং এর প্রয়োজনীয়তা

Firewall কি ? (what is firewall in Bangla), ফায়ারওয়াল কেন ব্যবহার করা হয়, ফায়ারওয়াল কিভাবে কাজ করে এবং ফায়ারওয়াল এর প্রয়োজনীয়তা নিয়ে আজকের আর্টিকেলে আমরা কথা বলবো।

firewall কি
ফায়ারওয়াল কাকে বলে

এছাড়া, আর্টিকেলের মধ্যে ফায়ারওয়াল এর প্রকার গুলো নিয়েও আমরা চর্চা করবো।

এমনিতে বেশিরভাগ computer এবং internet ব্যবহার করা ব্যক্তিরা ফায়ারওয়াল (firewall) শব্দটি শুনি থেকেন এবং তাদের মধ্যে অনেকেই এবিষয়ে কিছুটা অবশই জেনে থাকেন।

তবে, ফায়ারওয়াল কাকে বলে বা ফায়ারওয়াল এর কাজ নিয়ে সম্পূর্ণটা কিন্তু অনেক কম ব্যক্তিরাই জেনে থাকেন।

যেভাবে আমরা আমাদের প্রাত্যহিক জীবনে নিজেদের সুরক্ষিত এবং নিরাপদ রাখার জন্য বিভিন্ন ধরণের নিরাপত্তা প্রতিরোধ এর উপায় এবং কৌশল গুলো ব্যবহার করে থাকি,

ঠিক সেভাবেই, একটি computer device ভালো করে সুরক্ষিত এবং নিরাপদ ভাবে কাজ করতে থাকার জন্য কিছু computer protection এর প্রয়োজন হয়ে থাকে।

তবে একটি computer system কে safe এবং secure করে রাখার জন্য বিভিন্ন ধরণের security systems গুলোর ব্যবহার করে থাকি।

আর এই security system গুলোর মধ্যে সব থেকে অধিক পরিমানে ব্যবহার করা হয় কম্পিউটার এন্টিভাইরাস (antivirus) গুলোর।

একটি ভালো antivirus এর মাধ্যমে আমরা আমাদের কম্পিউটার সিস্টেম টিকে বিভিন্ন ধরণের computer virus এবং malware থেকে সুরক্ষিত করে রাখতে পারি।

একটি antivirus software কেবল তখন কাজ করতে পারে যখন আপনার কম্পিউটারে virus বা malware গুলো ইতিমধ্যে প্রবেশ হয়ে পরে বা হতে থাকে।

এক্ষেত্রে, ইউসার এর সিস্টেম সম্পূর্ণ ভাবে সুরক্ষিত হয়ে থাকছেনা।

কিন্তু, Firewall হলো এমন একটি security system যেটা malware এবং virus গুলোকে কম্পিউটারের মধ্যে প্রবেশ হওয়ার আগেই সেগুলোকে থাকিম দেয়।

চলুন, নিচে আমরা ফায়ারওয়াল মানে কি এবং ফায়ারওয়াল কিভাবে কাজ করে এবিষয়ে বিস্তারিত ভাবে জেনেনেই।

ফায়ারওয়াল (firewall) কি ? (What is firewall in Bangla)

Firewall হলো একটি শক্তিশালী কম্পিউটার সুরক্ষা প্রণালী (computer security system) যেটা প্রত্যেক ধরণের computer device এবং networks গুলোকে hacker, malware এবং virus থেকে সুরক্ষা প্রদান করে থাকে।

ফায়ারওয়াল সুরক্ষা মূলত একটি কম্পিউটার বা নেটওয়ার্ক এর সুরক্ষার জন্য ব্যবহার করা হয় যার ফলে কম্পিউটারে ভাইরাস প্রবেশ করতে পারেনা।

এছাড়া, এর ফলে একটি কম্পিউটার থেকে আরেকটি কম্পিউটারেও ভাইরাস এর স্থানান্তর হতে পারেনা।

বিভিন্ন হ্যাকার রয়েছেন যার আপনার কম্পিউটার নেটওয়ার্ক এর মধ্যে প্রবেশ করে আপনার কম্পিউটার বা নেটওয়ার্ক হ্যাক করার চেষ্টা করে থাকে।

এক্ষেত্রে, যদি আপনি ফায়ারওয়াল সুরক্ষা (firewall security) ব্যবহার করে থাকেন, তাহলে ফায়ারওয়াল দ্বারা হ্যাকার এর অনুরোধ (request) ব্লক (block) করে আপনার computer বা network এর নিরাপত্তা বজায় রাখা হবে।

অনেক সময়, যখন আমরা কম্পিউটারে ইন্টারনেট ব্যবহার করে থাকি বা বিভিন্ন ধরণের ওয়েবসাইটে প্রবেশ করে থাকি,

তখন অনেক সময় বিভিন্ন hackers বা attackers রা আমাদের কম্পিউটার সিস্টেম এর মধ্যে বিভিন্ন unwanted applications বা virus গুলোকে install করা চেষ্টা করে থাকে।

এক্ষেত্রে একটি firewall security আমাদের কম্পিউটারকে এসব internet attackers এবং hackers দের থেকে সম্পূর্ণ সুরক্ষা প্রদান করে থাকে।

এমনিতে, একটি Firewall security একটি application software program বা antivirus software এর মতোই কাজ করে থাকে।

যখনি আমাদের কম্পিউটার যেকোনো private network বা internet এর সাথে connect হয়ে থাকে তখন এই ফায়ারওয়াল কম্পিউটারের মধ্যে প্রবেশ করা প্রত্যেক unauthorize traffic access এর record রাখতে শুরু করে।

আর প্রত্যেক unauthorize traffic access গুলোর বিষয়ে user কে তথ্য গুলো জানিয়ে দিতে থাকবে এবং প্রয়োজন হবে harmful access গুলোকে block করতে থাকবে।

সোজা ভাবে বললে, ফায়ারওয়াল হলো কম্পিউটার এবং ইন্টারনেট নেটওয়ার্ক এর মধ্যে থাকা একটি সুরক্ষা দেয়াল (security wall).

তাহলে আশা করছি, firewall কি ? firewall বলতে কি বুঝায় ? বিষয়টা বুঝতে পেরেছেন।

ফায়ারওয়াল কত প্রকারের ও কি কি ? (Types of firewall)

Firewall মূলত দুধরণের বা দুই প্রকারের হয়ে থাকে।

এদের মধ্যে একটি হলো software firewall এবং আরেকটি হলো Hardware Firewall.

চলুন প্রত্যেকটি firewall এর বিষয়ে বিস্তারিত ভাবে জেনেনেই।

Software Firewall

এটা এমন একটি firewall security যেটাকে অনেক সহজেই computer এর মধ্যে install করা সম্ভব।

এমনিতে সফটওয়্যার ফায়ারওয়াল কিন্তু প্রায় প্রত্যেক Windows OS ( 7, 8, 10) এর মধ্যে আগের থেকেই দেওয়া থাকে যেটাকে আমরা Windows firewall এর নামে চিনি।

এমনিতে এই ধরণের ফায়ারওয়াল গুলো হার্ডওয়্যার ফায়ারওয়াল এর মতোই কাজ করে থাকে।

সফটওয়্যার ফায়ারওয়াল গুলো আলাদা আলাদা কম্পিউটার গুলোকে আলাদা আলাদা ভাবে সুরক্ষা প্রদান করে থাকে।

Software firewall গুলো একটি আলাদা বিশেষ রকমের computer software হয়ে থাকে যেগুলোকে একটি computer/server এর মধ্যে run করা হয়।

এটার মূল উদ্দেশ্য হলো আপনার computer/server কে সুরক্ষা প্রদান করা এবং বাইরের থেকে প্রবেশ করার চেষ্টা করা virus, attacks, malware গুলোকে বাধা দিয়ে কম্পিউটারের নিরাপত্তা নিয়ে কাজ করা।

Hardware Firewall

হার্ডওয়্যার ফায়ারওয়াল একটি অনেক শক্তিশালী এবং অধিক ভালো ফায়ারওয়াল সিকিউরিটি।

এই ধরণের ফায়ারওয়াল গুলো আলাদা ভাবে থাকা physical device এর রূপে থেকে থাকে যেগুলোর দাম তুলনামূলক ভাবে বেশি।

Hardware firewall গুলোকে মূলত বড় company এবং organization এর দ্বারা ব্যবহার করা হয়।

বেশিরভাগ routers এবং modem গুলোতে আগের থেকেই এই ধরণের firewall গুলোকে install করে রাখা হয়।

আর তাই, কম্পিউটার এবং ইন্টারনেট গেটওয়ের মধ্যে এই ফায়ারওয়াল অবস্থিত থাকে।

যখনি আপনি নিজের router বা modem এর মাধ্যমে নিজের computer সংযুক্ত (connect) করে থাকেন তখন আপনার কম্পিউটারে হার্ডওয়্যার ফায়ারওয়াল এর সুরক্ষা চালু হয়ে যায়।

এতে, বাইরের থেকে চলে আশা unauthorized access / traffic গুলোকে সঠিক ভাবে check করে প্রয়োজন হলে সেগুলোকে block করা হয়।

Software-based fire wall গুলোকে personal system এর জন্য ব্যবহার করা হয়।

তবে, hardware firewall গুলোকে business server এর ক্ষেত্রে ব্যবহার করা হয়।

ফায়ারওয়াল কিভাবে কাজ করে ?

ফায়ারওয়াল এর কাজ তো আপনারা ওপরে বুঝতেই পেরেছেন।

এর মূল কাজ হলো computer / server এবং internet / network এর মধ্যে একটি শক্তিশালী নিরাপত্তা ব্যবস্থা তৈরি করা যাতে অননুমোদিত অ্যাক্সেস / ট্রাফিক গুলো আপনার সিস্টেম এর কোনো ধরণের ক্ষতি সাধন করতে না পারে।

তবে চলুন এবার আমরা জেনেনেই ফায়ারওয়াল সিস্টেম কিভাবে কাজ করে।

Firewall হলো একটি ২ ওয়ে প্রটেকশন সিস্টেম।

যখনি আমরা আমাদের কম্পিউটার বা অন্যান্য ডিভাইস গুলোর মাধ্যমে ইন্টারনেট এক্সেস করে থাকি,

তখন ইন্টারনেটের মাধ্যমে বিভিন্ন ধরণের ক্ষতিকর সফটওয়্যার, ভাইরাস, বোট ইত্যাদি আমাদের সিস্টেম বা নেটওয়ার্ক এর মধ্যে প্রবেশ করার চেষ্টা করে থাকে।

আর এই ভয় যেকোনো কম্পিউটারে ডিভাইস এর ক্ষেত্রেই থেকে থাকে।

আর ফায়ারওয়াল (firewall) এই computer device এবং internet network এর মধ্যে থাকা একটি রক্ষাকবচ (Shield) হিসেবে কাজ করে।

কম্পিউটারের মধ্যে ইন্টারনেটের মাধ্যমে প্রবেশ করতে চেষ্টা করা প্রত্যেকটি request এবং traffic গুলোকে filter করে থাকে এই firewall.

এবং এতে যেকোনো ধরণের spyware, malware, virus ইত্যাদি গুলো আপনার কম্পিউটারে প্রবেশ হওয়ার আগেই সেগুলোকে block করে দেওয়া হয়।

এতে, আপনার computer / server ইত্যাদি সম্পূর্ণ সুরক্ষিত হয়ে কাজ করতে পারে।

Firewall এর লাভ এবং সুবিধা গুলো কি কি ?

একটি computer device বা server ইত্যাদিতে firewall এর সুরক্ষা থাকাটা অনেকটাই জরুরি

কেননা, ফায়ারওয়াল এর সুবিধা, উপকারিতা এবং লাভ অনেক রয়েছে।

  1. Firewall security এর মূল লাভ এবং সুবিধা হলো, এর দ্বারা সম্পূর্ণ network traffic গুলোকে monitor করা হয়। আপনার system এর মধ্যে প্রবেশ করা এবং সিস্টেম থেকে বেড় হওয়া data এবং network traffic গুলোকে ভালো করে filters করা হয় যাতে system সব সময় protected থাকে।
  2. বর্তমান সময়ে প্রত্যেক দিন নতুন নতুন virus গুলো তৈরি করা হচ্ছে যাতে computer system গুলোকে attack করা যেতে পারে। তাই, ফায়ারওয়াল এর মাধ্যমে আমরা আমাদের system এর প্রবেশ পথ গুলোকে নিয়ন্ত্রিত করে রাখতে পারি এবং ভাইরাস এটাক (virus attack) থেকে বাঁচতে পারি।
  3. বর্তমান সময়ে প্রচুর hackers রয়েছেন যারা লোকেদের system hack করে data, emails, systems, files ইত্যাদি নষ্ট বা চুরি করার চেষ্টা করে থাকে। এক্ষেত্রেও, একটি  firewall security সম্পূর্ণ ভাবে হ্যাকার দের বাধা দিয়ে থাকে বা আপনাকে একটি সহজ টার্গেট হিসেবে বেছে নিতে তাদের বাধা দিয়ে থাকে।
  4. Spyware virus গুলোকে তৈরি করা হয়েছে ব্যক্তির system থেকে চুপেচাপে data গুলোকে চুরি করার ক্ষেত্রে। Firewall security আপনাকে এই ধরণের spyware virus থেকেও সুরক্ষা প্রদান করে থাকে।

ওপরে বলা ফায়ারওয়াল এর লাভ এবং সুবিধা গুলো জানার পর আপনারা হয়তো ভালো করেই ফায়ারওয়াল এর প্রয়োজনীয়তা বুঝতে পেরেছেন।

 

আমাদের শেষ কথা,,

তাহলে বন্ধুরা, আজকের আর্টিকেলের মাধ্যমে আমরা firewall কাকে বলে (about firewall in Bangla) এবং ফায়ারওয়াল এর কাজ এবং প্রয়োজনীয়তা নিয়ে আলোচনা করলাম।

ফায়ারওয়াল এর বিষয়ে এখন হয়তো আপনারা সম্পূর্ণ স্পষ্ট করে সবটা বুঝতেই পেরেছেন।

যদি আমাদের আজকের আর্টিকেল আপনাদের ভালো লেগে থাকে, তাহলে আর্টিকেলটি অবশই সোশ্যাল মিডিয়াতে শেয়ার করবেন।

এছাড়া, আর্টিকেলের সাথে জড়িত কোনো ধরণের প্রশ্ন বা পরামর্শ থাকলে তাহলে নিচে কমেন্ট করে জানিয়ে দিবেন।

 

1 thought on “Firewall কি ? ফায়ারওয়াল কেন ব্যবহার করা হয় এবং এর প্রয়োজনীয়তা”

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error:
Scroll to Top
Copy link
Powered by Social Snap