সেরা ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেস গুলোর তালিকা – (Best freelancing marketplace)

সেরা ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেস গুলোর তালিকা (List of 15 Freelancing Marketplaces):

সেরা ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেস গুলোর তালিকা
Best freelancing marketplace list.

এখনকার সময়ে ফ্রিল্যান্সিং কাজের ক্রমবর্ধমান চাহিদার পাশাপাশি তৈরী হয়ে চলেছে বিভিন্ন ফ্রিল্যান্স প্ল্যাটফর্ম ও মার্কেটপ্লেস। 

এই মার্কেটপ্লেস গুলোর প্রধান কাজই হল বিভিন্ন কোম্পানিকে এমন প্রোজেক্ট বা কাজের ভূমিকার জন্য আনুষঙ্গিক কর্মী খুঁজে পেতে সাহায্য করা, যেই কাজের জন্য তাদের স্থায়ী কর্মীদের প্রয়োজন পড়ে না। 

এই প্ল্যাটফর্মগুলোতে একজন ফ্রিল্যান্সার হিসেবে আপনাকে আপনার প্রোফাইল তৈরি করতে হয়। 

এর সাথে-সাথে আপনার কাজের পোর্টফোলিওগুলোও শেয়ার করতে হয়। 

এরপরে, সমস্ত প্রোফাইল আপডেট হয়ে গেলে, আপনি সম্ভাব্য নিয়োগকারী বা ক্লায়েন্টদের সাথে যোগাযোগ করতে পারেন। 

ফ্রিল্যান্স প্ল্যাটফর্মে, নিয়োগকর্তা ও ফ্রিল্যান্সারা উভয়রাই তাদের প্রোফাইল তৈরী করে, কাজের অফার পোস্ট করে বা রিকোয়েস্ট পাঠিয়ে থাকে। 

আপনি আপনার পছন্দের ও আগ্রহের যেকোনো প্রোজেক্টের জন্য আবেদন করতে পারবেন। 

আর, এই ওয়েবসাইটগুলো ব্যবহার করে, আপনি আপনার ফ্রিল্যান্স কেরিয়ার শুরু করতেই পারেন। 

এই মার্কেটপ্লেসগুলো আপনাকে খুব তাড়াতাড়ি ক্লায়েন্ট পাইয়ে দিতে সাহায্য করে। 

আর, এই ওয়েবসাইটগুলোতে ভরসাযোগ্য নিয়োগকর্তা, কোম্পানি ও প্রজেক্ট দেওয়া থাকে।

আমাদের আজকের এই আর্টিকেলে আমরা আলোচনা করবো,

এমনই কতগুলো সেরা ও বিশ্বাসযোগ্য ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেস গুলোর সম্পর্কে, যেখানে আপনি সহজেই নিজের প্রোফাইল বানিয়ে, আপনার পছন্দমতো কাজের জন্যে আবেদন করতে পারবেন।

১৫টি সেরা ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেস গুলোর তালিকা

যারা ফ্রিল্যান্সার হিসেবে বাড়ি থেকেই কাজ করতে চান, তাদের জন্য আমরা এখানে প্রস্তুত করলাম,

২০২২ সালের সেরা মার্কেটপ্লেস ও ওয়েবসাইটগুলোর তালিকা –

১. Upwork:

লিঙ্ক- https://www.upwork.com/ 

বর্তমানে Upwork ইন্টারনেটের সবথেকে সেরা ফ্রিল্যান্স সাইটগুলোর মধ্যে অন্যতম। 

এখান থেকে যাকেই নিয়োগ করা হোক, এই সাইটের অ্যাডমিনিস্ট্রেশন পৃথকভাবে সবকিছুকেই যাচাই করে। 

যা নিয়োগ প্রক্রিয়াকে অনেকটা সহজ করে তোলে। 

আপওয়ার্ক থেকে যেকোনো ধরণের ফ্রিল্যান্সিং কাজ বা প্রজেক্ট পাওয়া সম্ভব। 

এই ব্যবহারকারী-বান্ধব ওয়েবসাইটটিতে আপনাকে আবেদন জমা দিয়ে রেজিস্টার করে, আপনার দক্ষতার ভিত্তিতে তা অনুমোদিত বা প্রত্যাখ্যাত হয়ে থাকে। 

এখানে প্রথমে আপনার কাজের কমিশন হিসেবে ২০% ফি নেওয়া হয়ে থাকে। 

পরে আপনি একই ক্লায়েন্টের সাথে বেশি কাজ করার সাথে-সাথে এই কমিশনের পরিমাণ কমে যায়। 

আপনি এখানে Microsoft, Airbnb, Dropbox ও আরও নানান বড় ব্র্যান্ডের সাথে কাজ করতে পারবেন।

২. Fiverr:

লিঙ্ক- https://www.fiverr.com/ 

Fiverr ফ্রিল্যান্সার ও ব্যবসাগুলোকে ডিজিটালভাবে সংযুক্ত করে। 

এখানে আপনি ২৫০টিরও বেশি বিভাগের পেশাদার পরিষেবার অফারগুলো পেতে পারেন৷ 

এই ওয়েবসাইটে ফ্রিল্যান্সাররা তাদের আবেদন রেখে নানা পোস্ট করতে পারে। 

আর, ক্লায়েন্টরা তাদের পছন্দমতো ফ্রিল্যান্সারদের নিজেদের প্রোজেক্ট দিতে পারে। 

Fiverr আপওয়ার্কের তুলনায় আপনাকে বেশি অর্থ প্রদান করে থাকে। 

এখানে সাধারণত আপনি লেখক, ফটোগ্রাফার, ভিডিও নির্মাতা, ওয়েব ডিজাইনার এবং এই ধরণের পেশার কাজও খুঁজে পেতে পারেন। 

নতুন ফ্রিল্যান্সারদের জন্য এই ওয়েবসাইটটি খুবই ভালো একটা প্ল্যাটফর্ম। 

এখানের প্রজেক্টগুলোর জন্য নতুন ফ্রিল্যান্সাররা একটা শালীন পরিমাণ অর্থ উপার্জন করতে পারে। 

এখানে আপনি ডিজিটাল পরিষেবা দিতে চাইলে, আপনাকে একটা সেলার প্রোফাইল তৈরি করতে হবে। 

এরপরে, আপনাকে আপনার সমস্ত প্রয়োজনীয় তথ্য-সম্বলিত একটা গিগ তৈরি করে, ক্লায়েন্টদের কাছে তা প্রস্তুত করতে হবে।

যাতে, সেই তথ্য দেখে ক্লায়েন্টরা আপনার সাথে কাজ করবে কিনা, সেটার সিদ্ধান্ত নিতে পারে। 

আপনি আপনার গিগে একটা ভিডিও যোগ করে, আরও বেশি সংখ্যক ক্লায়েন্টদের আকৃষ্ট করতে পারেন।

৩. Freelancer:

লিঙ্ক- https://www.freelancer.com/ 

ফ্রিল্যান্সার ওয়েবসাইটে বিভিন্ন ধরণের ফ্রিল্যান্স কাজ রয়েছে। 

এই ওয়েবসাইটটি স্পেশালাইজড ফ্রিল্যান্সারদের জন্যে খুবই জনপ্রিয় একটা প্ল্যাটফর্ম। 

এখানে আপনি গ্রাফিক ও লোগো ডিজাইনের মতো নানান ডিজাইনের কাজ, এসইও, কপিরাইটিং, এবং মার্কেটিং-এর মতো নানান ধরণের কাজ পেতে পারেন। 

এমনকি, আপনি ফ্রিল্যান্সার থেকে জার্মান, স্প্যানিশ, ফ্রেঞ্চ, পর্তুগিজ ও আরও একাধিক ভাষায় ফ্রিল্যান্সি কাজ খুঁজে পেতে পারেন।

এখানে আপনি নির্দিষ্ট মূল্যের প্রোজেক্ট, ঘণ্টার হারের প্রজেক্ট, দক্ষতা, কন্টেস্টস ও ভাষা সহ বিভিন্ন বিভাগ অনুযায়ী চাকরিগুলো ফিল্টার করতে পারবেন।

প্রতিটা কাজের তালিকায় আপনি বিডিং প্রাইস সহ বিডারের সংখ্যাও দেখতে পারেন। 

তাই, আপনি যদি কোনো নমনীয়, রিমোট ও নানা ফ্রিল্যান্সিং কাজ খুঁজে থাকেন, তাহলে এই ওয়েবসাইটটি হল আপনার জন্যে সেরা একটা বিকল্প। 

এখানে তাদের প্রায় ১৭ কোটি রেজিস্টার্ড ব্যবহারকারী ও ১ কোটি প্রোজেক্ট রয়েছে। 

এই ওয়েবসাইটি সারা বিশ্বে প্রায় ২৪০টি দেশে পরিষেবা দিয়ে থাকে। 

আর, ১৫ বছরেরও বেশি এই ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেসটি কাজ, পেমেন্ট ও ব্র্যান্ডের ক্ষেত্রে সম্পূর্ণ নির্ভরযোগ্য একটা প্ল্যাটফর্ম।

৪. Guru:

লিঙ্ক- https://www.guru.com/ 

Guru একটা তুলনামূলক নতুন কোম্পানি হলেও, এর ইতিমধ্যেই কোটি সংখ্যার সদস্য রয়েছে। 

এছাড়াও, এখানে প্রায় ১ লাখেরও বেশি কাজ সম্পন্ন হয়েছে। 

এখানে প্রায় ৩৪০০০০-এরও বেশি অনন্য পরিষেবা রয়েছে৷ 

এই প্ল্যাটফর্মটি আপনাকে পাঁচটি মাসিক সদস্যপদ অফার করে। 

এদের বেসিক প্যাকেজটি সবার জন্যেই বিনামূল্যে পরিষেবা দিয়ে থাকে। 

কিন্তু, এখানে আপনি বছরে মাত্র ১২০টি বিডিং করতে পারবেন। 

আপনি যদি এখান থেকে কোনো কাজ পান, তাহলে গুরু আপনাকে ৭% কমিশন চার্জ করে। 

আর, আপনি যদি বার্ষিক পেমেন্ট করেন, তাহলে আপনি ৬০০টি বিড পাবেন। 

এবং, সেখানে প্রতিটা কাজের কমিশন ৫% করে দিতে হবে। 

এখানে আপনি বেশ কিছু মার্কেটিং ফিচার, যেমন- সার্চ রেজাল্ট রেঙ্কিং, কিংবা প্রিমিয়াম কোটেশন তৈরি করতে পারবেন।

৫. People Per Hour:

লিঙ্ক- https://www.peopleperhour.com/ 

অন্যান্য ওয়েবসাইটের তুলনায়, PeoplePerHour ফ্রিল্যান্সারদের মতো পেশাদারদের সাথে ক্লায়েন্টদের যুক্ত করার অন্যতম সেরা মাধ্যম হিসেবে কাজ করে। 

আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্সের সাথে, এই মার্কেটপ্লেসটি ফ্রিল্যান্সার ও ক্লায়েন্টদের আরও সোজাসাপ্টাভাবে সংযুক্ত করে থাকে। 

একবার ক্লায়েন্টরা প্রোজেক্টের স্কোপ জমা দিলে, এর আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স সিস্টেম বিশদে তা বিশ্লেষণ করে, যোগ্য ফ্রিল্যান্সারদের সাথে কানেক্ট করিয়ে দেয়। 

এখানে ফ্রিল্যান্সারদের তাদের প্রস্তাব জমা দেওয়ার জন্য ইনভাইট করা হয়, যাতে তারা তাদের নিজস্ব মূল্য নির্ধারণ করতে পারে। 

আর, ক্লায়েন্টরা ফ্রিল্যান্সারদের একটা কিউরেটেড লিস্ট থেকে সেরা জনকে বেছে নিতে পারে। 

এখানে ক্লায়েন্ট ও ফ্রিল্যান্সারদের সঠিক ম্যাচ খোঁজার জন্য সময় নষ্ট করতে হয় না। 

এছাড়াও, এখানের নির্দিষ্ট পেমেন্ট সিস্টেম ক্লায়েন্ট ও ফ্রিল্যান্সারদের শান্তিপূর্ণভাবে পেমেন্টের কাজ সারতে দেয়।

৬. Toptal:

লিঙ্ক- https://www.toptal.com/ 

আপনি যদি উচ্চ-মানের ফ্রিল্যান্সারদের খুঁজে থাকেন, তাহলে Toptal হল এমন একটা ফ্রিল্যান্স মার্কেটপ্লেস, যেখানে একদম সেরা ফ্রিলান্সারদেরই পাওয়া সম্ভব। 

এদের আবেদন প্রক্রিয়াটা যথেষ্টই কঠিন। 

আর, এই ওয়েবসাইটের সিলেকশন পদ্ধতি বেশ কঠিন হওয়ায়, প্রতিদিন আসা হাজার-হাজার আবেদন থেকে এরা মাত্র সেরা কয়েকটিই বেছে নেয়। 

তাই, এখানে বিভিন্ন সেরা সংস্থাগুলো তাদের পছন্দের সেরা ফ্রিল্যান্সারদেরকেই বেছে নিতে পারে। 

এখানে আপনি ডেভেলপিং, ডিজাইনার, প্রজেক্ট ম্যানেজিং ও ফিনান্স এক্সপার্টের মতো নানান ধরণের ফ্রিল্যান্সিং কাজ পেতে পারেন। 

এই মার্কেটপ্লেস আপনাকে আপনার কাজের জন্য সঠিক ব্যক্তি খুঁজে দিতে সাহায্য করে থাকে। 

আপনার স্ক্রীনিং প্রক্রিয়া সম্পূর্ণ হওয়ার পরে, আপনি নির্বাচিত হলে, তবেই আপনি দুর্দান্ত ক্লায়েন্টদের সাথে কাজ করতে পারবেন। 

আপনি এখানে নানান বড় ব্র্যান্ড, যেমন – Airbnb, Hewlett-Packard, Motorola, Zendesk ও আরও অন্যান্য কোম্পানির সাথেও কাজ করতে পারবেন।

৭. FlexJobs:

লিঙ্ক- https://www.flexjobs.com/ 

FlexJobs ফ্লেক্সিবল ও রিমোট কাজের সুযোগের জন্যে জনপ্রিয়। 

আপনি প্রোজেক্ট ম্যানেজমেন্ট, কন্টেন্ট রাইটিং থেকে শুরু করে প্রোগ্রামিং-এর কন্ট্রাকচুয়াল কাজ এখানে পেতে পারেন। 

অনলাইন চাকরির জন্য এই সাইটটিতে রিমোট/হাইব্রিড/অনসাইট, কাজের সময়সূচী, ভ্রমণের প্রয়োজনীয়তা ও আরও নানান বিষয়ের ফিল্টার রয়েছে। 

যার সাহায্যে আপনি নমনীয়তার সঙ্গে আপনার চাকরির বোর্ডটি ফিল্টার করতে পারবেন। 

এই ভালোভাবে ডিসাইন করা ওয়েবসাইটটি, নতুন গিগগুলোকে পুঙ্খানুপুঙ্খভাবে নিরীক্ষণ করে ও চাকরি নিয়ে গবেষণা করে, তবেই কোনো পোস্টিং করতে দেয়। 

এই প্ল্যাটফর্মে পোস্ট করা প্রতিটা পোস্ট একটা বিশদ স্ক্রীনিং প্রক্রিয়ার মধ্য দিয়ে যায়। 

যার ফলে, এখানে প্রতিটা কাজের পোস্টগুলো সত্য এবং বৈধ হয়ে থাকে। 

এখানে আপনি ৫০টিরও বেশি কেরিয়ার বিভাগে, সারা বিশ্ব থেকে চাকরি খোঁজার সুযোগ পাবেন। 

তবে, এটি সম্পূর্ণভাবে বিনামূল্যের প্ল্যাটফর্ম নয়; আপনি যদি নিয়োগকর্তাদের বিশাল নেটওয়ার্ক ও প্রতিটা কোম্পানির বিশদ বিবরণের সম্পূর্ণ অ্যাক্সেস চান, তাহলে আপনাকে এর জন্য পে করতে হবে।

৮. 99designs:

লিঙ্ক- https://99designs.com/ 

99designs হল ফ্রিল্যান্সারদের জন্য আরেকটি সেরা ওয়েবসাইট। 

এটি ডিজাইনারদের সারা বিশ্বের ব্যবসার সাথে সংযোগ করতে দেয়। 

আপনি একজন ফ্রিল্যান্সার ডিজাইনার হতে চাইলে, 99Designs হল আপনার কেরিয়ার শুরু করার দুর্দান্ত একটা প্ল্যাটফর্ম। 

আপনি আপনার আগ্রহের ডিসাইন, স্টাইল ও ইন্ডাস্ট্রি বেছে নিতে পারেন। 

তবে, এই প্ল্যাটফর্মটি ফ্রিল্যান্স কর্মীদের জন্য কিছু স্টার্টআপ খরচ নিয়ে আসে। 

এখানে কিছু অর্থের বিনিময়ে, আপনাকে ক্লায়েন্টদের সাথে পরিচয় করিয়ে দেওয়া হয়।

এই ওয়েবসাইটটি অন্যান্য ওয়েবসাইটগুলোর তুলনায় ভিন্নভাবে কাজ করে। 

ক্লায়েন্টদের এই প্ল্যাটফর্মে শুধুমাত্র তাদের প্রয়োজনীয়তাগুলো দিতে হয় ও ডিজাইনারদের তাদের এন্ট্রিগুলো জমা দিতে হয়। 

এরপর, ক্লায়েন্ট তাদের পছন্দের কোনো একজন ডিজাইনারকে নির্বাচন করে ও ডিজাইনের বদলে পেমেন্ট করে।

এই ওয়েবসাইটার সবথেকে ভালো বিষয় হল এই যে, তারা আপনাকে একজন ফ্রিল্যান্সার হিসাবে যথেষ্ট সাপোর্ট দিয়ে আপনার কাজের সুযোগ খুঁজে দিতে পারে। 

আপনি এখানে ডিজাইনারদের কম্যুনিটিও জয়েন করতে পারেন। 

৯. We Work Remotely:

লিঙ্ক – https://weworkremotely.com/ 

একজন ফ্রিল্যান্সার হিসাবে, আপনার চাকরি খোঁজার আরও একটা নির্ভরযোগ্য বিকল্প হল WeWorkRemotely। 

এখানে অনেক ডিজাইনিং, প্রোগ্রামিং, কপিরাইটিং, সেলস, মার্কেটিং ও অন্যান্য কাজের অপশন রয়েছে। 

এমনকি, আপনি এর নিউজলেটারেও আবেদন করতে পারেন। 

এছাড়াও, আপনি যে বিভাগে সবচেয়ে বেশি আগ্রহী তা চিহ্নিত করে নতুন চাকরির অপশনগুলো সরাসরি আপনার ইনবক্সে নিয়ে নিতে পারেন। 

আপনি নতুন কোনো বিষয় সম্পর্কে দেখতে এর পেজ ব্রাউজ করতে পারেন। 

আপনি আপনার দক্ষতার সাথে সবচেয়ে উপযুক্ত বিভাগ সহজেই বাছতে পারবেন। 

এছাড়াও, আপনি ফুল-টাইম ও কনট্রাকচুয়াল সুযোগগুলোও দেখতে পারেন। 

উই ওয়ার্ক রিমোটলি-এর কাজের ডেটাবেস প্রায়শই আপডেট করে। 

তাই, নতুন আপডেট জানার জন্য, মাঝেমধ্যেই ফিরে আসতে পারেন। 

কিংবা, এর নিউজলেটারগুলোও ফলো করতে পারেন।

১০. Dribbble:

লিঙ্ক- https://dribbble.com/ 

Dribbble হল একটা বিশাল ফ্রিল্যান্সিং প্ল্যাটফর্ম, যেখানে সারা বিশ্বের ডিজাইনার ও ক্রিয়েটিভরা তাদের মাস্টারপিস শেয়ার করে থাকে।

এছাড়াও, এটা একটা ফুল জব বোর্ড তৈরির সিদ্ধান্ত নিয়েছে, যা আরও অনেক বেশি চাকরির সুযোগ এনে দেবে। 

বিশেষত, আপনি যদি ডিজাইনের কাজ খুঁজে থাকেন, তাহলে আপনি এখানে অনেক অপশন পেয়ে যেতে পারেন। 

আপনি এখানে বিভিন্ন স্পেশালিটি অনুযায়ী, মোবাইল এবং ওয়েব ডিজাইনার, ইলাস্ট্রেটর, গ্রাফিক্স, অ্যানিমেটর ও ব্র্যান্ড ডিজাইনিং-এর মতো কাজও ব্রাউজ করতে পারেন। 

এছাড়াও, আপনি আপনার লোকেশন বেছে নিতে পারেন, রিমোট ওয়ার্ক ও ফুল-টাইমের কাজগুলো পরীক্ষাও করতে পারেন। 

আপনি অন্য কোনো কিছু অনুসন্ধান করতে চাইলে, সহজেই তা কীওয়ার্ডে টাইপ করে নিতে পারেন।

১১. Startupers:

লিঙ্ক- https://www.startupers.com/ 

সেরা ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেসগুলোর তালিকার মধ্যে Startupers হল সেরা একটা নাম। 

এটা একটা ছোট ও কম জনপ্রিয় ফ্রিল্যান্স মার্কেটপ্লেস হলেও, এখানে বেশ অনন্য চাকরি খুঁজে পাওয়ার সুযোগ রয়েছে। 

এই প্ল্যাটফর্মটি প্রাথমিকভাবে স্টার্টআপের উপর ফোকাস করেই কাজ করে থাকে। 

আপনি ক্যাম্পেইন স্ট্র্যাটেজিস্ট, ডেটা এনালিটিক্স, এএমএল ইনভেস্টিগেটর, ক্লায়েন্ট ম্যানেজার, টেকনোলোজিক্যাল অ্যাসিস্ট্যান্স, এবং সিনিয়র ব্যাক-এন্ড ইঞ্জিনিয়ার পদের চাকরিরও খোঁজ করতে পারেন। 

এখানে বিভাগ অনুসারে ব্রাউজ করার অপশন না থাকলেও, আপনি আপনার কীওয়ার্ড টাইপ করে সার্চ করতে পারেন। 

আর, এর অফারগুলো চেক করতে পারেন। 

যেহেতু, এই প্ল্যাটফর্মটি কাজের বোর্ড নিয়মিত আপডেট করে থাকে, তাই এটিকে ঘনঘন ভিসিট করতে ভুলবেন না। 

১২. Authentic Jobs:

লিঙ্ক- https://authenticjobs.com/ 

Authentic Jobs হল ক্রিয়েটিভ, ডিজাইনার ও সফটওয়্যার ডেভেলপারদের জন্য একটা সেরা জব বোর্ড। 

এই ফ্রিল্যান্স সাইটের সবথেকে ভালো ব্যাপারটা হল এই যে, এইখানে আপনি ইন্টার্নশিপ, ফ্রিল্যান্স গিগ, পার্ট ও ফুল-টাইম কাজের জন্য আলাদা আলাদাভাবে দেখতে পারেন। 

আর, Authentic Jobs-এ আপনি UI/UX জব, ডিজিটাল মার্কেটিং জব কিংবা সফ্টওয়্যার ডেভেলপমেন্ট জবও পেতে পারেন।

১৩. Behance:

লিঙ্ক- https://www.behance.net/ 

Behance হল বিশ্বের অন্যতম জনপ্রিয় ডিজাইন সংগ্রহের ওয়েবসাইট। 

এখানে রয়েছে একটা বিশাল ডিজাইনার কম্যুনিটি। 

এখানে লোকেরা তাদের সম্পন্ন করা ডিসাইন, এখনও কাজ চলছে এমন প্রজেক্টগুলোও শেয়ার করে। 

আর, Behance এমন অনেক ডিজাইনারদের জন্যও বহুলভাবে পরিচিত, যারা কনসেপ্ট আর্ট তৈরি করছে। 

যা প্রায়শই আসল ধারণাটির থেকেও অসাধারণ কাজ করে থাকে। 

এর জবস বোর্ড হল এমন একটা জায়গা, যেখানে আপনি আপনার স্টার্টআপ, প্রোজেক্ট বা আপনি যে ধরণের চাকরি খুঁজছেন, তার একটা তালিকা পোস্ট করতে পারেন। 

যেহেতু, এটা একটা বড় মাপের কম্যুনিটি, তাই এখানে একজন ডিজাইনার খুঁজে পাওয়া যথেষ্ট সহজ।

১৪. SimplyHired:

লিঙ্ক- https://www.simplyhired.co.in/ 

যারা এক্সট্রা কাজ খুঁজছেন তাদের জন্য এই মার্কেটপ্লেস একদম উপযুক্ত।

এই SimplyHired প্ল্যাটফর্মটিতে ফ্রিল্যান্সাররা প্রায় বিভিন্ন ক্ষেত্রেই কাজ খুঁজে পেতে পারেন। 

আর, এখানে চাকরির পোস্টিং দেওয়ার জন্য কোনো চার্জও নেওয়া হয় না। 

যে কারণে, এই ওয়েবসাইটে অসংখ্য কাজের সুযোগ থাকে। 

আর, আপনি এখানে খুব সহজেই নিজের প্রোফাইল তৈরী করে, একজন ফ্রিল্যান্সার হিসাবে কাজ করতে পারবেন। 

এরপরে, আপনি আপনার কাছাকাছি অবস্থানের ফ্রিল্যান্স চাকরিও খুঁজতে পারবেন। 

এখানে শীর্ষ বেতনের তালিকা ও টুল থেকে আপনি আপনার ফিও অনুমান করতে পারেন। 

এটি প্রায় ২৪ টিরও বেশি দেশ ও ১২টি ভিন্ন ভাষায় কাজ প্রদান করে থাকে। 

এছাড়াও, আপনি আপনার সার্চগুলোকে আপনার আগ্রহ অনুযায়ী ফিল্টার করতে পারেন, যাতে আপনি দ্রুত আপনার পছন্দের চাকরির সন্ধান পেয়ে যান৷ 

১৫. LinkedIn:

লিঙ্ক- https://in.linkedin.com/  

LinkedIn হল ভারত তথা বিশ্বের অন্যতম বিশ্বাসযোগ্য অনলাইন সার্ভিস প্রোভাইডার কোম্পানি। 

এখানে আপনি প্রতিদিন এমন লক্ষ লক্ষ চাকরির পোস্ট দেখতে পাবেন, যেখানে ফুলটাইমের পাশাপাশি পার্ট-টাইম বা ফ্রিল্যান্সিং কাজেরও অপশান থাকে। 

এই কোম্পানির বিনামূল্য ও প্রিমিয়াম দুই সাবস্ক্রিপশনই রয়েছে। 

কিন্তু, আপনি যদি পেমেন্ট করতে না চান, তাহলেও এর বিনামূল্য ভার্শনটিও যথেষ্ট কার্যকরী। 

তবে, এখানে আপনি প্রচুর চাকরির পোস্টিং দেখতে ও আবেদন করতে পারবেন। 

আর, এখানে সাইন আপ করাও বেশ সহজ। 

এখানে আপনাকে লিংকডইনে প্রবেশ করার জন্যে, কোনোরকমের কোনো পরীক্ষা বা স্ক্রীনিং-এর মধ্য দিয়ে যেতে হয় না।

 

আমাদের শেষ কথা,,

আমাদের আজকের সেরা ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেসের তালিকাটি এখানেই শেষ হল। 

লেখাটি পছন্দ হলে অবশ্যই তা কমেন্ট করে জানাতে ভুলবেন না।

এছাড়া, আর্টিকেলের সাথে জড়িত কোনো ধরণের প্রশ্ন বা পরামর্শ থাকলে, সেটাও আপনি কমেন্টের মাধ্যমে জানাতে পারেন।

শেষে, আর্টিকেলটি পছন্দ হলে অবশই সোশ্যাল মিডিয়া প্লাটফর্ম গুলোতে শেয়ার করবেন।

 

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top