৯টি মানি আর্নিং অ্যাপস পকেট মানি ইনকাম করার জন্যে

বর্তমান সময়ে, নিজের মোবাইল দিয়ে টাকা ইনকাম করার নানান উপায় গুলো রয়েছে। আপনার মোবাইলের জন্য আপনি এমন এমন টাকা ইনকাম করার অ্যাপ গুলো পেয়ে যাবেন, যেগুলি ব্যবহার করে অন্তত কিছু টাকা হলেও পকেট মানি হিসেবে অবশই আয় করে নিতে পারবেন।

তবে এই মানি আর্নিং অ্যাপ গুলো ব্যবহার করে নিজের মূল্যবান সময় গুলো নষ্ট না করার পরামর্শই আমি সব সময় আপনাদের দিয়ে থাকি।

এই online money earning apps গুলো আজ যদিও আপনাকে পার্ট-টাইম কিছু টাকা ইনকামের সুযোগ দিচ্ছে, তবে যেকোনো সময়ই বেশিরভাগ অ্যাপস গুলিকে গুগল প্লে স্টোর থেকে সরিয়ে দেওয়া হয়। আবার, এই ধরণের income apps গুলি চাইলে যেকোনো সময়, রিওয়ার্ড ইনকামের সুবিধা বন্ধ করে দিতে পারে।

এমনিতে যদি আপনি, মোবাইলে ভিডিও দেখে টাকা ইনকাম করা বা গেম খেলে টাকা ইনকাম করার মতো সাধারণ কাজ গুলো করার মাধ্যমে নিজের মোবাইল দিয়ে কিছু টাকা পকেট মানি হিসেবে ইনকাম করার কথা ভাবছেন, তাহলে নিচে বলে দেওয়া এই সেরা অনলাইন আর্নিং অ্যাপস গুলো অবশই ব্যবহার করতে পারবেন।

এই Income apps গুলো ব্যবহার করার মাধ্যমে যে আপনার ইনকাম হবেই, তার কিন্তু কোন গ্যারান্টি নেই।

তবে, ইন্টারনেটে নানান বিশ্বস্ত অনলাইন মানি আর্নিং অ্যাপস গুলো অবশই পেয়ে যাবেন যেগুলির অনলাইন রিভিউ অবশই ভালো এবং নানান ছোট ছোট কাজ গুলো করার বিপরীতে আপনাকে টাকা বা রিওয়ার্ড ইনকামের সুযোগ দিয়ে থাকে।

অবশই পড়ুন:

অনলাইন আর্নিং অ্যাপ গুলো কি সত্যি টাকা দেয়?

মনে রাখা দরকার যে, বেশিরভাগ অনলাইন আর্নিং অ্যাপস গুলো কিন্তু অনেক সামান্য পরিমানের ইনকাম করার সুযোগ দিয়ে থাকে।

মানে, মোবাইল দিয়ে ইনকাম করার এই অ্যাপস গুলি ব্যবহার করে দিনে বা মাসে হাজার হাজার টাকা ইনকাম করতে পারবেননা। এমন নানান ওয়েবসাইট এবং ব্লগ গুলো রয়েছে যেখানে আপনাকে ভুলভাল বলে বিভ্রান্ত করার চেষ্টা করা হয়। তবে, ইনকাম যে একেবারেই হবেনা সে কথা আমি বলছিনা।

Online earning apps গুলোতে নানান ছোট ছোট কাজ গুলো আমাদের করতে বলা হয়। যেমন ধরুন, সার্ভে সম্পূর্ণ করা, গেম খেলা, ভিডিও দেখা, নতুন নতুন অ্যাপস গুলো মোবাইলে ইনস্টল করা ও ব্যবহার করা, ইত্যাদি।

এই ছোট ছোট কাজ গুলো সঠিক ভাবে সম্পূর্ণ করার বিপরীতে ফ্রিতে টাকা ইনকাম করার এই অ্যাপ গুলি অনেক ছোট ছোট পরিমানের reward বা cash আমাদের একাউন্টে দিয়ে থাকে। মনে রাখবেন, এই ধরণের বৈধ অ্যাপগুলিতে কিন্তু টাকা ইনকামের সাথে জড়িত সম্পূর্ণ তথ্য গুলো সঠিক ভাবে উল্লেখ করা থাকবে।

নিজের মোবাইলে যেকোনো ধরণের online income apps গুলি ব্যবহার করার আগে সম্ভাব্য ঝুঁকি সম্পর্কে আপনাকে সতর্ক থাকা দরকার এবং app-টির বিষয়ে যতটা সম্ভব ততটা তথ্য সংগ্রহ করাটা দরকার। এছাড়া, নানান অনলাইন রিভিউ গুলি পড়ার মাধমেও আর্নিং অ্যাপস গুলির বিষয়ে অনেকটা জানা যায়।

অবশই পড়ুন: টিকটক থেকে কিভাবে টাকা ইনকাম করা যায়?

মানি আর্নিং অ্যাপের মাধ্যমে অর্থ উপার্জনের সেরা উপায়:

অনলাইনে থাকা নানান earning apps গুলি বর্তমানে ব্যাপক জনপ্রিয়তা অর্জন করেছে বললে আমি ভুল হবোনা।

এই online income app গুলিকে কাজে লাগিয়ে গেম খেলা, রেফার করা, ভিডিও দেখা এবং সার্ভে সম্পূর্ণ করার মতো সাধারণ কাজ গুলো করার মাধ্যমে অনেকেই কিছুটা হলেও পকেট মানি ইনকাম করার সুযোগ পাচ্ছেন।

আর তাই, এই আর্টিকেলের মধ্যে আমরা এমন কার্যকর উপায় গুলির বিষয়ে আলোচনা করব যেগুলির দ্বারা এই money earning apps গুলির থেকে আপনি অধিক টাকা ইনকাম করার সুযোগ পেতে পারবেন।

Task-based Apps:

অনলাইন আর্নিং অ্যাপের বিভিন্ন প্রকার গুলির মধ্যে সব থেকে সাধারণ এবং জনপ্রিয় আর্নিং অ্যাপ হলো এগুলি।

এগুলো মূলত টাস্ক-ভিত্তিক অ্যাপ যেখানে নানান ছোট ছোট কাজ গুলি সম্পূর্ণ করার বিপরীতে রিওয়ার্ড প্রদান করা হয়। কি কি টাস্ক সম্পূর্ণ করতে হবে তার একটি লিস্ট দিয়ে দেওয়া হয়। যেমন ধরুন, গেম বা অ্যাপ ডাউনলোড করা, ওয়েবসাইটে একাউন্ট তৈরি করা, বিজ্ঞাপন দেখা বা ভিডিও দেখার মতো কাজ গুলো দেওয়া হয়।

Gaming Apps:

এমন নানান Mobile Gamming Apps গুলো রয়েছে যেগুলির দ্বারা মোবাইলে গেম খেলে টাকা ইনকাম করার সুযোগ দেওয়া হয়। এই ধরণের অ্যাপ গুলো আপনাকে নানা ছোট বড় প্রতিযোগিতা গুলিতে অংশগ্রহণ করার মাধ্যমে অনেক বড় পরিমানের রিওয়ার্ড আয়ের সুযোগও দিয়ে থাকে।

গেম খেলে টাকা ইনকাম করার ক্ষেত্রেও আবার আলাদা আলাদা রকমের apps গুলো পাবেন। যেমন ধরুন, কিছু অ্যাপস আপনাকে সম্পূর্ণ ফ্রীতে গেম খেলে অনলাইন আর্নিং এর সুবিধা দেয়। আবার, এমনও gaming apps আছে যেগুলিতে টাকা বিনিয়োগ করেই প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করা যাবে।

Survey Apps:

আরেকটি জনপ্রিয় money earning app এর প্রকার হলো এই survey apps গুলো। এই ধরণের apps গুলো আপনাকে ছোট-বড় নানান সার্ভে গুলো সম্পূর্ণ করার বিপরীতে ক্যাশ বা রিওয়ার্ড ইনকাম করার সুযোগ দিয়ে থাকে। সার্ভে গুলো সম্পূর্ণ করার ক্ষেত্রে আপনাকে কেবল নিজের মতামত গুলো দিয়ে দিতে হয়।

অবশই পড়ুন: ঘরে বসে মোবাইলে আয় করার সেরা উপায়

পকেট মানি ইনকাম করার সেরা মানি আর্নিং অ্যাপস: ৯টি

মানি আর্নিং অ্যাপ
Best money earning apps for android mobile

আপনি কি জানেন, এখন নিজের মোবাইলে লুডু গেম খেলে টাকা ইনকাম করাটাও সম্ভব?

যদি এই ধরণের মজার এবং সোজা কাজ গুলো করার মাধ্যমে অনলাইনে পার্ট-টাইম টাকা ইনকাম করতে চাইছেন, তাহলে নিচে বলে দেওয়া এই সেরা পার্ট-টাইম মানি আর্নিং অ্যাপস গুলি ব্যবহার করে দেখতে পারেন।

অনলাইন আর্নিং অ্যাপস:বিশেষ ফীচার:
১. Meesho Appপছন্দমতো দাম সেট করে রিসেল করুন।
২. U Speak We Payকথা বলে টাকা ইনকাম করুন।
৩. Swagbucks – Surveys for Moneyছোট ছোট কাজ করে আর্নিং করুন।
৪. TaskBucksগেম এবং কুইজে অংশগ্রহণ করা।
৫. Roz Dhanসহজ এবং মজার কাজ গুলো থাকছে।
৬. Google Opinion Rewardsনিজের মতামত দিয়ে আর্নিং।
৭. TaskBuddy – Pocket Money Appগেম খেলুন, টাস্ক করুন, রেফার করুন।
৮. ySenseসার্ভে সম্পূর্ণ, রেফার করে আর্নিং।
৯. InboxDollarsভিডিও দেখুন, সার্ভে করুন।

Best apps to earn pocket money online.

১. Meesho App

Meesho হল একটি জনপ্রিয় ই-কমার্স প্ল্যাটফর্ম এবং মোবাইল অ্যাপ যেটি যেকোনো ব্যক্তিকে তার নিজস্ব অনলাইন ব্যবসা শুরু এবং পরিচালনা করার সুবিধা দেয়।

App-টি মূলত, WhatsApp, Facebook, Instagram, ইত্যাদির মতো নানান সোশ্যাল মিডিয়া প্লাটফর্ম গুলো ব্যবহার করার মাধ্যমে পণ্যের পুনঃবিক্রয় করার মধ্যে ফোকাস করে থাকে। আর একজন ইউসার হিসেবে আমি, আপনি বা জেকেও এই পণ্য গুলিকে নিজের পছন্দমতো দাম সেট করে বিক্রি করিয়ে অনলাইনে পার্ট-টাইম আর্নিং করতে পারবো।

Meesho অ্যাপটি, মূলত একজন ব্যক্তিকে, বিশেষ করে নারী এবং ক্ষুদ্র উদ্যোক্তাদের তাদের নিজস্ব ক্ষুদ্র ব্যবসা শুরু করার ক্ষমতা দিয়ে থাকে। এই রিসেলিং ব্যবসা শুরু করার জন্য আপনাকে কোনো ধরণের বিনিয়োগ করতে হয়না। ইনভেন্টরি ম্যানেজমেন্ট, ডেলিভারি, বিলিং ইত্যাদি সবটাই Meesho-এর তরফ থেকেই করা হবে।

Meesho app-এর সুবিধা:

  • বিনিয়োগ ছাড়া পার্ট-টাইম ব্যবসা শুরু করা যায়।
  • যেকোনো পণ্য সোশ্যাল মিডিয়াতে শেয়ার করে বিক্রি করানো যায়।
  • ইনভেন্টরি, শিপিং এবং ডেলিভারি নিয়ে চিন্তা করতে হয়না।
  • প্রতিটি পণ্যের বিক্রির সাথে লাভ আয় করা যাবে।

২. U Speak We Pay

যদি আপনি নিজের খালি সময়ে মোবাইল দিয়ে অনলাইনে কাজ করে পার্ট-টাইম আর্নিং করতে চাইছেন, তাহলে এই অ্যাপটি অবশই ব্যবহার করে দেখতে পারেন। App-টি ব্যবহার করে কথা বলার মাধ্যমে ইনকাম করার বিষয়ে বলা হয়েছে। মানে, আপনি কথা বলার জন্য টাকা ইনকাম করার সুযোগ পাচ্ছেন।

App-এর মধ্যে দিয়ে দেওয়া প্রতিটি বাক্য গুলো স্পষ্টভাবে উচ্চারণ করতে বা বলতে হবে।

কাজ শুরু করার জন্য আপনাকে সরাসরি app-টিকে Google Play Store থেকে মোবাইলে download ও install করে নিতে হবে। এবার, আপনার পছন্দের ভাষার চয়ন করুন এবং রেকর্ড বাটনে click করুন। শেষে, বাক্যগুলি যেমন ভাবে ডিসপ্লে করা হবে সেভাবেই সেগুলিকে দেখে দেখে বলুন।

মনে রাখবেন, আপনাকে একেবারে সঠিক উচ্চারণ সহ বাক্যগুলি বলতে হবে।

এভাবেই, বাক্যের উচ্চারণ করে বা কথা বলে খুব সহজেই এই app থেকে online income করা যাবে। এছাড়া, App-টি রেফার করেও অতিরিক্ত রেফারেল ইনকাম আয় করা যাবে।

U Speak We Pay app-এর সুবিধা:

  • কথা বলে বা বাক্যের উচ্চারণ করে ইনকাম করুন।
  • এখানে refer & income program রয়েছে।

৩. Swagbucks – Surveys for Money

নিজের মূল্যবান মতামত গুলো জানানোর মাধ্যমে অনলাইনে অর্থ উপার্জনের একটি সেরা উপায় হলো এই Swagbucks app-টি। এখানে আপনারা হাজার হাজার paid survey গুলি পেয়ে যাবেন যেগুলিকে সঠিক ভাবে সম্পূর্ণ করার মাধ্যমে পার্ট-টাইম আর্নিং করা সম্ভব।

Google Play Store-থেকে এই app-টি প্রায় ৫ মিলিয়ন থেকেও অধিক ডাউনলোড করা হয়েছে। Swagbucks app-টি প্রথমবার রেজিস্টার করার পর $10 Welcome Bonus দেওয়ার কোথাও বলা রয়েছে। Survey সম্পূর্ণ করার পাশাপাশি, অন্যান্য নানান ছোট ছোট টাস্ক গুলো সম্পূর্ণ করেও রিওয়ার্ড ইনকাম করা যাবে।

যেমন ধরুন, নতুন নতুন অ্যাপস গুলো ডাউনলোড ও ব্যবহার করে বা মোবাইলে গেম খেলার মাধ্যমে। আয় করা swagbucks rewards/points গুলিকে আপনারা PayPal cash বা free gift cards-এর মাধ্যমে রেডিম করতে পারবেন।

Swagbucks-এর সুবিধা:

  • ফ্রীতে $10 welcome bonus দেওয়া হবে।
  • একাধিক মাধ্যমে ইনকাম করা যাবে।
  • রিওয়ার্ড গুলিকে PayPal cash বা free gift cards-এর মাধ্যমে তুলতে পারবেন।

৪. TaskBucks

Taskbucks, এমটি অনেক জনপ্রিয় mobile app যেটি ব্যবহার করে একাধিক মাধ্যমে রিওয়ার্ড আয় করার সুযোগ পাবেন। যেমন ধরুন, ছোট ছোট সার্ভে গুলোর উত্তর দেয়ার মাধ্যমে প্রতি সার্ভেতে কমেও ১০ থেকে ২০ টাকা ইনকাম করা যাবে।

এছাড়া, কোনো ডাউনলোড ছাড়া সরাসরি Taskbucks app-এর মধ্যে গেম গুলো খেলার মাধমেও ইনকাম সম্ভব। আবার, spin wheel, login bonus, treasure box-এর দ্বারা free coins আয় করা যাবে।

ইনকাম করা coins গুলিকে আপনারা paytm, recharge এবং vouchers এর মাধ্যমে তুলতে পারবেন। Taskbucks app-টি অন্যান্য ব্যক্তিদের রেফার করেও referral rewards income করা যাবে।

TaskBucks app-এর সুবিধা:

  • Quizzes এবং games খেলে coins ইনকাম করা যায়।
  • Referral rewards ইনকাম করার অপসন রয়েছে।
  • নানান টাস্ক গুলো সম্পূর্ণ করে ওয়ালেট ক্যাশ আয় করা যায়।

৫. Roz Dhan

Roz Dhan হলো, অন্যতম সেরা অর্থ উপার্জনকারী অ্যাপ গুলোর মধ্যে একটি।

বলা হয়েছে যে, app-টিতে প্রথমবার লগইন করার জন্যে ৫০ টাকা সম্পূর্ণ ফ্রীতে বোনাস হিসেবে দেওয়া হবে। এর বাইরেও, প্রথমবার অ্যাপটিতে লগইন করার পর যখন কিছু সাধারণ নিউ ইউজার টাস্ক গুলো সম্পূর্ণ করে নিবেন তখন আপনাকে আরও ৫০ টাকা দিয়ে দেওয়া হবে।

এই app-থেকে বড় ভাবে cash rewards income করার জন্যে এর refer & income program-টি ব্যবহার করতে পারবেন। আপনার দ্বারা ইনভাইট করা প্রথম ইউসার যখন Roz Dhan App-এর মধ্যে login করবেন, তখন আপনাকে ১২ টাকা দিয়ে দেওয়া হবে।

এগুলি ছাড়াও, এখানে নানন ছোট ছোট টাস্ক গুলি সম্পূর্ণ করার মাধ্যমে ইনকাম করা যাবে। যেমন ধরুন, আর্টিকেল পড়া, গেম খেলা, সার্ভের উত্তর দেওয়া ইত্যাদি।

Roz Dhan App-এর সুবিধা:

  • ইনকামের একাধিক উপায় গুলো রয়েছে।
  • নতুন ইউজাররা সরাসরি ১০০ টাকা আয় করার সুযোগ পাচ্ছেন।
  • প্রতি রেফারে ১২ টাকা ইনকাম করা যায়।

৬. Google Opinion Rewards

Google Opinion Rewards, একটি অনেক জনপ্রিয় reward based program। অ্যাপটি মূলত Google Surveys team-এর দ্বারা তৈরি করা হয়েছে।

এখান থেকে আপনারা সরাসরি টাকা ইনকাম করতে পারবেননা যদিও, রিওয়ার্ড হিসেবে দেওয়া হবে Google Play Credits। এই প্লে ক্রেডিট গুলি ব্যবহার করে প্লে স্টোর থেকে in-app products, apps, books এবং subscriptions কিনে নিতে পারবেন।

এখন প্রশ্ন হলো, গুগল প্লে ক্রেডিট কিভাবে ইনকাম করা যাবে? তাই তো?

আপনাকে সোজা গুগল প্লে স্টোরে গিয়ে app-টি মোবাইলে ইনস্টল করে নিতে হবে। এবার, আপনাকে আপনার বিষয়ে কিছু সাধারণ প্রশ্ন জিজ্ঞেস করা হবে যেগুলির উত্তর সঠিক ভাবে দিয়ে দিতে হবে। এবার, প্রায় প্রত্যেক সপ্তায় আপনাকে একটি করে সার্ভে পাঠানো হবে। তবে পাঠানো সার্ভে গুলির পরিমান কম বেশি হতে পারে।

অবশই পড়ুন: স্টুডেন্টদের জন্য পার্ট টাইম জবের সেরা বিকল্প

যখনই আপনাকে সার্ভে গুলি পাঠানো হবে বা আপনার জন্যে একটি শর্ট এবং রিলেটেড সার্ভে রেডি করা হবে, আপনার মোবাইলে নোটিফিকেশন পাঠিয়ে সেই বিষয়ে জানিয়ে দেওয়া হবে। মনে রাখবেন, সার্ভে গুলো সম্পূর্ণ করার মাধ্যমে আপনি সর্বোচ্চ ৩২.২০ টাকা পর্যন্ত প্লে ক্রেডিটে পেয়ে যেতে পারবেন।

৭. TaskBuddy – Pocket Money App

Wallet Rewards income করার আরেকটি কার্যকর app হলো, TaskBuddy app-টি। এখানে আপনারা অনেক সাধারণ রকমের কাজ গুলো করে, গেম খেলে, আর্টিকেল গুলো পড়ে ইত্যাদি অন্যান্য নানান মাধ্যমে ইনকাম করার সুযোগ পাবেন।

এখানেও আপনারা প্রথমবার লগইন করার বিপরীতে ফ্রি ৫০ টাকা পেয়ে যাবেন। এবার, প্রথমবার কিছু সাধারণ কাজ গুলো করার মাধ্যমে এক্সট্রা ৫০ টাকা সরাসরি ইনকাম করে নিতে পারবেন। এছাড়া, TaskBuddy App-টি অন্যান্য ব্যক্তিদের কাছে রেফার করে অধিক ইনকাম করার সুযোগ পাবেন।

টাকা ইনকাম করার জন্য আপনারা, surveys, daily bonus, install এবং register করার সহজ কাজ গুলো করতে পারবেন। এছাড়া, Spin and Win, Scratch Card, Math Quiz, Games ইত্যাদির মতো ইনকামের অন্যান্য উপায় গুলিরও লাভ নিতে পারবেন।

ইনকাম করা রিওয়ার্ড গুলিকে আপনারা Paytm account, UPI এবং Flipkart Gift Card-এর দ্বারা তুলতে পারবেন।

৮. ySense

এটাও একটি অনেক জনপ্রিয় মানি আর্নিং মোবাইল অ্যাপ যেটি ব্যবহার করে সাধারণ কাজ গুলো সম্পূর্ণ করে রিওয়ার্ড ইনকাম করা সম্ভব।

তবে, এখান থেকে সহজে এবং নিয়মিত আর্নিং করার জন্যে আপনি paid survey গুলো সম্পূর্ণ করা এবং এর refer & earn program-টি ব্যবহার করতে পারবেন। এগুলি ছাড়াও, নানান offers গুলি সম্পূর্ণ করেও এখান থেকে ইনকাম করা সম্ভব।

ইনকাম করা টাকা গুলো আপনারা PayPal-এর মাধ্যমে সরাসরি নিজের ব্যাঙ্ক একাউন্টে ট্রান্সফার করতে পারবেন। আবার চাইলে, উপলব্ধ নানান কোম্পানির gift card হিসেবেও টাকা গুলো redeem করা যাবে।

৯. InboxDollars

গুগল প্লে স্টোরে ৫ মিলিয়ন থেকেও অধিক ডাউনলোড এবং প্রায় ৪ রেটিং এর সাথে থাকা এই InboxDollars app-টি, অনলাইনে উপলব্ধ সেরা মানি আর্নিং অ্যাপস গুলির মধ্যে আরেকটি। এখানে cash reward income করার একাধিক উপায় গুলো রয়েছে। যেমন ধরুন, পেইড সার্ভে, ইমেইল পড়া, নানান অফার সম্পূর্ণ করা, গেম খেলা, ভিডিও দেখা ইত্যাদি। একবার আপনার একাউন্টে $30 ইনকাম হয়ে গেলে, আপনি টাকা গুলো তুলে নিতে পারবেন।

অবশই পড়ুন: ফ্রিতে ডলার ইনকাম করার ৫টি উপায়

শেষ কথা,,

তাহলে আশা করছি, অনলাইনে আর্নিং করার সেরা অ্যাপস গুলোর বিষয়ে আপনাদের সবটা ভালো করে বুঝিয়ে বলতে পেরেছি।

এমনিতে ইন্টারনেটে প্রচুর free money earning apps গুলো আপনারা পেয়ে যাবেন। তবে, অনলাইনে টাকা ইনকামের সুযোগ দেওয়া প্রত্যেকটি অ্যাপই যে আপনাকে টাকা দিবে, সেটা ভাবলে চলবেনা। এমন প্রচুর অনলাইন আর্নিং অ্যাপস গুলো আছে যেগুলি আপনাকে দিয়ে কাজ করিয়ে শেষে কোনো টাকা দেয়না।

এই ধরণের income apps গুলো ব্যবহার করার আগে সব সময় খানিকটা যাচাই করবেন এবং অনলাইনে অ্যাপস গুলোর সাথে জড়িত রিভিউ গুলো অবশই পড়বেন।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top