মোবাইলের সেরা ৭টি ডিলিট ফটো রিকভারি অ্যাপস/সফটওয়্যার

একটি এন্ড্রয়েড স্মার্টফোনে এমনিতে আমরা প্রচুর ছবি গুলি সেভ করে রাখতে পারি।

যার মোবাইলে যত অধিক স্টোরেজ স্পেস রয়েছে সে ততটাই অধিক ছবি মোবাইলে সেভ করে রাখতে পারবেন। এভাবেই, একটি স্মার্টফোনে বছরের পর বছর ছবি রাখতে রাখতে সেখানে আমাদের পছন্দের বা প্রিয়জনের নানান ছবি গুলি রাখা হয়ে যায়।

এবার, একজন এন্ড্রয়েড মোবাইল ইউজারের জীবনে এমন এক সময় অবশই চলে আসে যখন তার পছন্দের কোনো ছবি মোবাইল থেকে ডিলিট হয়ে যায় এবং সেই ডিলিট ছবিটি রিকভার করার নানান উপায় গুলি সে খুঁজে থাকেন।

অবশই পড়ুন: মোবাইলে বাংলা লেখার সফটওয়্যার ডাউনলোড 

মোবাইল থেকে ডিলিট করা ছবি কিভাবে ফিরিয়ে আনা যায়?

ডিলিট ফটো রিকভারি সফটওয়্যার
Best android mobile photo recovery apps.

যদি আপনার সাথেও ঠিক এটাই হয়েছে এবং আপনিও নিজের এন্ড্রয়েড মোবাইল থেকে ডিলিট করা ছবি কিভাবে ফিরিয়ে আনা যায় এই বিষয়ে ভাবছেন, তাহলে চিন্তার কোনো বিষয় নেই।

কেননা, আজকের আর্টিকেলের মধ্যে আমি আপনাদের, মোবাইলের ডিলিট করা ছবি ফিরিয়ে আনার একটি দারুন উপায় বলবো। আর সেই উপায়টি হলো, ডিলিট ফটো রিকভারি অ্যাপ/সফটওয়্যার গুলি।

হ্যা, ইন্টারনেটে এমন নানান apps/software আপনারা পাবেন, যেগুলিকে কাজে লাগিয়ে নিজের মোবাইল থেকে ডিলিট হয়ে যাওয়া ছবি গুলিকে পুনরুদ্ধার করা যায়। আর আজকের এই আর্টিকেলের মধ্যে আমরা, এন্ড্রয়েড মোবাইলের জন্য থাকা এমনই সেরা ৭টি ডিলিট ফটো রিকভারি সফটওয়্যার এর বিষয়ে আপনাদের বলবো।

রিলেটেড: ডিলিট করা ভিডিও ফিরিয়ে আনার উপায়

সাধারণত, এই অ্যান্ড্রয়ড ফটো রিকোভারি অ্যাপ গুলো ব্যবহার করা খুবই সহজ

যেকোনো স্মার্টফোনে এই ফ্রি অ্যাপ্লিকেশনগুলো ব্যবহার করার সাধারণ স্টেপসগুলো হল,

  • নিজের এন্ড্রয়েড ফোনে থাকা Google Play Store অ্যাপটা ওপেন করুন।
  • এবার সেখানে ‘photo recovery app’ লিখে সার্চ করুন।
  • নিজের সুবিধামতো একটা অ্যাপ্লিকেশন সিলেক্ট এবং ডাউনলোড করে ইনস্টল করুন।
  • অ্যাপটা ইনস্টল হওয়ার পর, ওপেন করে যে ধরণের ফাইল রিকভার করতে চান, সেই ফাইল টাইপ (ফটোস, ইমেজেস ইত্যাদি) সিলেক্ট করুন।
  • যে স্টোরেজ লোকেশনের ছবি রিকভার করতে চাইছেন সেটা সিলেক্ট করুন (যেমন- ইন্টারনাল বা এক্সটার্নাল স্টোরেজ/SD কার্ড ও অন্যান্য)
  • এরপর ‘Scan’-এ প্রেস করে স্ক্যান শুরু করে রেজাল্ট আসার অপেক্ষা করুন।
  • এরপর যে ছবি/ফাইলগুলো রিকভার করতে চান, সেগুলোতে ক্লিক করে ‘Restore’ বাটনে ক্লিক করুন।

Google Photos App-এ ব্যাকআপ চেক করা:

প্রথমেই যেকোনো ফটো রিকোভারি অ্যাপ ব্যবহার করার আগে, এন্ড্রোইড ফোনের Google Photos-এ ছবির ব্যাকআপ আছে কিনা সেটা দেখে নেওয়া ভালো। যেহেতু, বেশিরভাগ এন্ড্রয়েড মোবাইলেই গুগল ফটোস অ্যাপটি ইনবিল্ট থাকে।

তাই, যদি এই অ্যাপ্লিকেশনে আপনার ছবির অটোমেটিক ব্যাকআপ enable করা থাকে, তাহলে এখানে আপনার ডিলিটেড ফটো বা ভিডিও গুলো সেভ হয়ে থাকার সুযোগ অনেকটাই বেশি থাকছে।

১. নিজের ফোনের Google Photos App-টি ওপেন করুন।

২. এরপর স্ক্রিনের নিচে থাকা ‘Library’ অপশনে ক্লিক করুন।

৩. স্ক্রিনের ডানদিকের উপরে থাকা ‘Trash’ ফোল্ডারে যান।

৪. যেই ফটো রিকভার করবেন সেটাকে সিলেক্ট করুন।

৫. এরপর ‘Restore’ বাটনে প্রেস করলে আপনার ছবি আনডিলিট করে নিন।

এমনিতে, Trash ফোল্ডারে না গিয়েও, Google Photos-এর নরমাল ছবির সেক্শনেও একবার দেখে নিলে ভালো। কেননা, মোবাইলের ফাইল ম্যানেজার থেকে ডিলিট করা ছবি গুলি কিন্তু একসাথেই গুগল ফটোজ থেকে ডিলিট হয়ে যায়না।

Google Photos হলো একটি cloud storage platform যেখানে সেভ থাকা video/images গুলিকে কেবল গুগল ফটোজ app থেকে ডিলিট করা সম্ভব।

অবশই পড়ুন: কিভাবে মোবাইল দিয়ে টিভি চালানো যায়?

মোবাইলের সেরা ৭টি ডিলিট ফটো রিকভারি অ্যাপস/সফটওয়্যার:

আমাদের আজকের এই লিস্টে এমন কতগুলো সেরা ফটো রিকভারি অ্যাপের কথা বলা হয়েছে, যেগুলো ইউস করে খুব সহজেই মোবাইল থেকে ডিলিট করা বা ডিলিট হয়ে যাওয়া ফটোস বা ইমেজেসগুলিকে রিকভার করা যায়।

এমনকি, খুব কম সময়ের মধ্যে আপনি মুছে যাওয়া ফাইল ও ফটোগুলোকে ফিরিয়ে আনতে পারবেন।

১. Applus Studio File & Photo Recovery:

রেটিং: 4.6/5

ডাউনলোড: 10L+

একটি সেরা এবং কার্যকর অ্যান্ড্রয়ড ফটো রিকোভারি অ্যাপ্লিকেশন হিসেবে Applus Studio-এর এই অ্যাপটি খুবই ভালো কাজ দিয়ে থাকে। এছাড়া এই অ্যাপটি অনেক ফাস্ট এবং নিরাপদও।

এখানে শুধুমাত্র ফটোই নয়, এখান থেকে মিউসিক, অডিও এবং ডক্যুমেন্ট ফাইলও রিকভার করা যায়। আপনার সমস্ত ডিলিটেড ছবিগুলো ফোন স্টোরেজে নিজে থেকেই সেভ হয়ে যাবে।

ফিচার

  • ডিলেটেড ছবি রিকভার করার খুবই লাইটওয়েট অ্যাপ্লিকেশন।
  • বিভিন্ন ধরণের ফাইল ফরম্যাট রিকভার হয়।
  • অটোম্যাটিক ডিলেটেড ইমেজ ডেটা স্ক্যানিং।
  • এক্সটার্নাল মেমোরি কার্ড থেকে রিকোভারি হয়।

২. Deleted Photo Recovery: Easy Data-Recovery:

রেটিং: 4.6/5

ডাউনলোড: 10L+

আপনার মোবাইল থেকে খুব ইম্পর্ট্যান্ট ফাইল ডিলেট হয়ে গেছে? এদিকে, সময়মতো ডক্যুমেন্টও সাবমিট করতে হবে?

চিন্তা করতে হবেনা, এক্ষেত্রে অবশ্যই এই Deleted Photo Recovery App-টি ইনস্টল করে ব্যবহার করে দেখতে পারেন। কেননা, এর কুইক স্ক্যানিং ফিচারের সাহায্যে সেকেন্ডের মধ্যেই জরুরি ফাইল বা ফটো স্ক্যান এবং রিকভার করা যায়।

এর ওয়ান-ট্যাপ ফিচারটি আপনার সব ডিলিটেড ফাইল ফিরিয়ে আনতে সাহায্য করতে পারে।

ফিচার

  • যেকোনো ফাইল ফর্ম্যাটে কাজ করে,
  • আগে ডিলেট হয়ে যাওয়া ছবি ডিপ স্ক্যান করে খুঁজে থাকে,
  • যেকোনো স্টোরেজ থেকে ফাইল রিকভার করতে পারে,
  • রিকোভারি লিস্ট থেকে ফটো পার্মানেন্টলি ডিলিটও করা যায়।

৩. Photo Recovery : Easy To Use (OnMobi)App:

রেটিং: 4.4/5

ডাউনলোড: 50L+

ছবির পাশাপাশি কোনো প্রয়োজনীয় অ্যাপ ভুল করে পার্মানেন্টলি ডিলিট করে ফেলেছেন? অথচ, সেই অ্যাপের ডেটাগুলো আপনার খুবই দরকারি?

তাহলে, একবার এই ডিলিট ফটো রিকভারি সফটওয়্যারটি অবশই ব্যবহার করে দেখতে পারেন।

এর উন্নত টেকনোলজির সাহায্যে সহজেই ডিলিট হওয়া অডিও, ইমেজ, ডক্যুমেন্ট, কম্প্রেসড ও APK ফাইলগুলো ফিরে পেতে পারেন।

ফিচার

  • সিকিউর ফাইল ডিলিশান ফিচার আছে,
  • ফাইল বা ছবি রিকোভারি করার আগে ফাইল রিভিউ করা যায়,
  • রিকভার করা ছবি মেমোরি কার্ডে রিস্টোর হয়,
  • কম্প্রেস্ড ও APK ফাইলও রিকভার করতে পারে।

৪. AI Photo Team- Photo Recovery:

রেটিং: 4.4/5

ডাউনলোড: 1Cr+

আপনার মোবাইলে ফোল্ডার অনুযায়ী ছবি বা অন্য ফাইল রিকভার করার একটি সেরা অ্যাপ হল এই Photo Recovery মোবাইল অ্যাপ্লিকেশনটি।

মোবাইল থেকে অ্যাক্সিডেন্টালি ডিলিটেড যেকোনো ফাইল মিনিটের মধ্যে ফেরত পেতে চাইলে অবশ্যই এই অ্যাপটি ইউস করতে পারেন। এর প্রিভিউ ডিলিটেড ফাইলস অপশনটি ফাইলটি রিকভার করার সময়ও যথেষ্ট সাহায্য করে।

এখানে আপনি ফোল্ডার, সাইজ, বছর এবং ডেট অনুযায়ীও ছবি, অডিও বা ডক্যুমেন্ট রেস্টোর করতে পারবেন। এমনকি, এই অ্যাপ দ্বারা ফটো রিকভার করার জন্যে কোনোরকমের ইন্টারনেট কানেকশনও লাগে না।

ফিচার

  • কুইক ডিপ স্ক্যানিং ফিচার রয়েছে,
  • রিকভার্ড ফাইলস খুঁজে পাওয়া সহজ,
  • অরিজিনাল কোয়ালিটিতে ফটো রিস্টোর করে,
  • ডিলিট করা ফটো গুলি সহজে স্ক্যান করার জন্যে দরকারি ফিল্টারস আছে,

৫. Dumpster: Photo/Video Recovery

রেটিং: 4.1/5

ডাউনলোড: 5Cr+

আপনার এন্ড্রয়েড ডিভাইস রুট করা না থাকলেও সমস্যা নেই, কেননা এখন মোবাইল রুট না করেও সহজেই যেকোনো মিডিয়া ফাইল এবং অ্যাপের ব্যাকআপ করার অন্যতম সেরা অ্যাপটি হল এই Dumpster।

এই অ্যাপটি একদম রিসাইকেল বিনের মতো কাজ করে। অ্যাপ্লিকেশনটি একবার ডাউনলোড করার পর থেকেই এটি আপনার যাবতীয় ডিলিটেড ডেটার ব্যাকআপ রাখতে থাকে।

তাই, আপনার কোনো ডেটাই ভুল করে হারিয়ে ফেলার ভয় থাকে না।

ফিচার

  • ডিপ স্ক্যান ফটো রিকভারির সুবিধা আছে,
  • প্রাইভেট ফাইল হাইড করার সুবিধা,
  • একসাথে বিভিন্ন ফাইল টাইপ রিস্টোর হয়,
  • বিভিন্ন ফাইলের অটোম্যাটিক ব্যাকআপ থাকে।

৬. IDrive Photo Backup:

রেটিং: 4.1/5

ডাউনলোড: 50T+

আপনি যদি প্রফেশনাল ফটো বা ভিডিওগ্রাফার হয়ে থাকেন, তাহলে এই IDrive অ্যাপটি আপনার খুবই কাজে লাগবে।

কেননা, ফটোগ্রাফির কাজে অনেক ভারী রেসল্যুশনের ফাইল সেভ ও এডিট করার জন্যে অনেক সময়েই মেমোরি ক্র্যাশ করে ফাইল নষ্ট হয়ে যায়।

তাই, সমস্ত ভিডিও ও ছবি তাদের অরিজিনাল রেসল্যুশনে স্টোর করার সেরা জায়গা হল এই এন্ড্রোইড অ্যাপটা।

এখানে আপনি খুব কম সময়ের মধ্যে ছবি ও ভিডিওর ব্যাকআপ আপলোড করতে পারবেন। প্রতিটা আলাদা ফোল্ডারে অটোম্যাটিক আপলোডেরও সুবিধা আছে।

ফিচার

  • সরাসরি ক্লাউড স্টোরেজে ব্যাকআপ করা যায়,
  • অরিজিনাল রেসল্যুশনে ফটো ও ভিডিও সেভ হয়,
  • ফোনের পাশাপাশি কম্পিউটারের ফাইলেরও ব্যাকআপ রাখে,
  • টাইমলাইনের সাহায্যে সহজেই ডিলিটেড ছবি ট্র্যাক করা যায়।

৭. Recover Files – Restore All:

রেটিং: 4.1/5

ডাউনলোড: 10L+

সেকেন্ডের মধ্যে মুছে ফেলা ছবি ও ভিডিও রিকভার করার বিনামূল্যের ও ভালো একটি অ্যাপ হল এই Recover Files অ্যাপ। যেকোনো গুরুত্বপূর্ণ তথ্য অথবা ফটোস, অ্যাপস, ভিডিওস এবং অডিও ফাইলস, সমস্ত কিছুই এই অ্যাপ দ্বারা মুহূর্তে মধ্যেই রিস্টোর করা যায়।

এই ওয়ান-ক্লিক রিকোভারি টুলও আপনার ফোনের রিসাইকেল বিন হিসেবে কাজ করে। তাই, আপনি কোনো ফাইল ভুল করে ডিলিট করে ফেললেও সেটা সাথে-সাথেই এর রিসাইকেল বিন থেকে পেয়ে যাবেন।

ফিচার

  • ডিভাইস রুট করতে হয় না,
  • এক ক্লিকে নানান ফাইল রিকভার হয়,
  • ফটো ও ভিডিও ব্যাকআপের সুবিধা রয়েছে,
  • ইন্টারনাল ও এক্সটার্নাল স্টোরেজ থেকেও ফটো রিকভারি হয়।

আমাদের শেষ কথা,,

মনে রাখবেন, এন্ড্রয়েড মোবাইলের জন্য থাকা এই ডিলিট ফটো রিকভারি অ্যাপ গুলোর ক্ষেত্রে সেফটি ও সিক্যুরিটির ব্যাপারটা কিন্তু অত্যন্ত জরুরি। কারণ, এখানে আপনার অনেক ব্যক্তিগত ছবি, ভিডিও এবং তথ্যগুলোও জড়িত থাকে।

তাই, এই অ্যাপ্লিকেশনগুলো ডাউনলোড ও ব্যবহার করার আগে অবশ্যই এর রিভিউগুলো দেখে নেবেন।

তবে, আমাদের আর্টিকেলের মধ্যে বলে দেওয়া ডিলিট ফটো রিকোভারি সফটওয়্যার/অ্যাপ গুলি বেশিরভাগ সময়েই আপনাকে সফলভাবে নিজের ডিলিটেড ফাইল বা ফটো গুলি রিস্টোর করার সুযোগ দিয়ে থাকবে।

অবশই পড়ুন: মোবাইলের সেরা ৭টি ভিডিও কল রেকর্ড সফটওয়্যার

 

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top