জিবি হোয়াটসঅ্যাপ কি ? কতটা নিরাপদ এই হোয়াটসঅ্যাপ অ্যাপটি

জিবি হোয়াটসঅ্যাপ ডাউনলোড: বর্তমান সময়ে প্রত্যেক smartphone ব্যবহার করা ব্যক্তিরা WhatsApp কিন্তু অবশই ব্যবহার করে থাকেন।

জিবি হোয়াটসঅ্যাপ কি
জিবি হোয়াটসঅ্যাপ মানে কি ?

তবে, সেটা ফটো শেয়ার, ভয়েস শেয়ার বা টেক্সট চ্যাটিং যেকোনো মাধ্যমেই আমরা একে আরেকজনের সাথে WhatsApp এর মাধ্যমে যোগাযোগ করতে পারি।

আর অনলাইনে যোগাযোগের একটি দারুন মাধ্যম হওয়ার কারণেই বিশ্বের সব থেকে জনপ্রিয় অ্যাপ হিসেবে হোয়াটসঅ্যাপকে ধরা হয়।

তবে, হোয়াটসঅ্যাপ (WhatsApp) তো প্রত্যেকেই ব্যবহার করে থাকেন, তবে আপনি কি GB WhatsApp এর বিষয়ে জানেন ?

জিবি হোয়াটসঅ্যাপ কিন্তু বর্তমানে অনেকেই ব্যবহার করছেন এবং অনেকেই ব্যবহার করতে চাইছেন।

তবে, হোয়াটসঅ্যাপ এর এই unofficial version টি কতটা নিরাপদ (safe) এই বিষয়েও কিন্তু আপনি জেনে রাখাটা দরকার।

আর তাই, আজকের এই আর্টিকেলের মাধ্যমে আমি আপনাদের বলবো, জিবি হোয়াটসঅ্যাপ কি (What is GB WhatsApp in Bangla) এবং জিবি হোয়াটসঅ্যাপ ডাউনলোড কিভাবে করবেন। 

এছাড়া, এর নিরাপত্তা নিয়েও আমরা চর্চা অবশই করবো।

জিবি হোয়াটসঅ্যাপ কি ? (What is GB WhatsApp in Bangla)

অনেকেই আবার GB WhatsApp এর নাম শুনেই এই app টিকে Google play store এর মধ্যে খুজেঁ থাকেন।

তবে বলে দেই, এই অ্যাপটি আপনারা Google play store থেকে ডাউনলোড করতে পারবেননা কেননা গুগল প্লে স্টোরে এই অ্যাপটি নেই।

আর তাই GB WhatsApp এর নিরাপত্তা নিয়ে একটি প্রশ্ন অবশই প্রত্যেকের মনেই চলে আসে।

GB WhatsApp একটি third-party application বা software যেটা দেখতে সম্পূর্ণটাই হোয়াটস্যাপ এর মতোই এবং ফাঙ্কশন গুলো অরিজিনাল হোয়াটস্যাপ এর মতোই।

তবে, আসল WhatsApp app এর তুলনায় GB WhatsApp এর মধ্যে প্রচুর রকমের features গুলো রয়েছে যেগুলোর কারণে GB WhatsApp ব্যবহার করে অনেকেই অনেক পছন্দ করে থাকেন।

WhatsApp এর মধ্যে থাকা প্রত্যেক features গুলো GB WhatsApp এর মধ্যে পাওয়ার সাথে সাথে কিছু Advanced Feature গুলিও আমরা এখানে পেয়ে থাকি যার ফলে অনেকের জন্য এই অ্যাপটি অনেক কাজের প্রমাণিত হয়ে থাকে।

টেকনিক্যালি যদি বলা হয় তাহলে, জিবি হোয়াটসঅ্যাপ হলো আসল হোয়াটসঅ্যাপ এর একটি ক্লোন (clone) অ্যাপ ভার্সন।

GB WhatsApp এর ক্ষেত্রে third-party developers রা মিলে WhatsApp এর মতোই একটি customized clone app তৈরি করেছেন।

জিবি হোয়াটসঅ্যাপ এর সুবিধা ও লাভ গুলো কি ?

অবশই যা আমি আগেই বললাম, জিবি হোয়াটসঅ্যাপ এর সুবিধা ও লাভ প্রচুর রয়েছে, এবং এখানে normal WhatsApp এর তুলনায় প্রচুর advanced features গুলো দেওয়া হয়।

  1. জিবি হোয়াটসঅ্যাপ এর সাথে সাথে আপনি অন্য হোয়াটসঅ্যাপ এর ব্যবহার অবশই করতে পারবেন।
  2. এর মাধ্যমে আপনারা অন্যের স্টেটাস গুলোকে কপি করে পেস্ট করতে পারবেন।
  3. এখানে Multiple Language support রয়েছে যার মাধ্যমে নিজের মন পছন্দের ভাষার ব্যবহার সম্ভব।
  4. Multiple Language Translate এর সুবিধাও এখানে আপনারা পাবেন।
  5. Custom Themes এর অপসন রয়েছে।
  6. এর মাধ্যমে blue tick, double tick এবং online status হাইড করতে পারবেন।
  7. যদি কোনো ব্যক্তির সাথে ব্যক্তিগত (private) চ্যাটিং করছেন তাহলে সেই চ্যাট পাসওয়ার্ড এর সাথে লক করে রাখতে পারবেন।
  8. আনলিমিটেড WhatsApp stories পোস্ট করতে পারবেন।
  9. 16GB size পর্যন্ত ভিডিও গুলোকে আপনারা শেয়ার করতে পারবেন।
  10. Notification এবং Launcher Icon পাল্টে দিতে পারবেন।
  11. Tick Style এর design নিজের হিসেবে পাল্টে রাখতে পারবেন।
  12. অধিক MB থাকা ভিডিও গুলোকে অধিক লোকেদের একসাথে সেন্ড করতে পারবেন।
  13. WhatsApp Group এর name টি অধিক লম্বা করে লিখতে পারবেন।
  14. WhatsApp lock feature আপনারা পাবেন।
  15. WhatsApp Custom font এর সুবিধা দেওয়া হয়েছে।
  16. Message Scheduled এবং Auto Reply এর সুবিধা দেওয়া হয়েছে।
  17. এখানে DNA মানে Do Not Disturb এর সুবিধা দেওয়া হয় যেটাকে অনেকেই অনেক পছন্দ করে থাকেন।

এছাড়াও আরো অন্যান্য advance features হয়তো আপনারা জিবি হোয়াটসঅ্যাপ এর মধ্যে পেতে পারেন, তবে কেবল জরুরি ফীচার গুলোর বিষয়ে আমি আপনাদের বললাম।

কিভাবে জিবি হোয়াটসঅ্যাপ ডাউনলোড করবেন ?

GB WhatsApp apk ডাউনলোড করার প্রক্রিয়া অনেক সোজা এবং সহজ।

আপনাকে নিজের মোবাইলের ব্রাউজার এর মধ্যে download gb whatsapp apk লিখে সার্চ দিতে হবে।

এবার আপনারা অনেক ওয়েবসাইট দেখতে পাবেন যেগুলোতে গিয়ে জিবি হোয়াটসঅ্যাপ ডাউনলোড করতে পারবেন।

ওয়েবসাইট গুলোতে গেলেই আপনারা একটি “Download button” দেখতে পাবেন যেখানে ক্লিক করার পর application টি আপনার মোবাইলে ডাউনলোড হয়ে যাবে।

আমি আবার বলছি, আপনারা জিবি হোয়াটসঅ্যাপ কিন্তু গুগল প্লে স্টোরে খুঁজে পাবেননা।

যেকোনো মোবাইল যেটাতে Android 4.0+ version রয়েছে, এই এপ্লিকেশনটি কাজ করবে।

জিবি হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহার করাটা কতটা নিরাপদ (safe)

অবশই সাধারণ হোয়াটসঅ্যাপ এর তুলনায় জিবি হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহার করলে আপনারা প্রচুর advanced features গুলো অবশই পাবেন।

তবে, যেটা সব থেকে জরুরি প্রশ্ন সেটা হলো এই জিবি হোয়াটসঅ্যাপ কোনটা নিরাপদ।

GB WhatsApp হলো original WhatsApp এর একটি modified version যেটা অন্যান্য third-party developers রা মিলে বানিয়েছেন।

তাই বলা যেতে পারে যে official WhatsApp Inc এর সাথে GB WhatsApp এর কোনো সম্পর্ক নেই।

আর তাই, যদি আপনি GB WhatsApp ব্যবহার করছেন তাহলে আপনার original WhatsApp account permanently banned হওয়ার সুযোগ অবশই থেকে থাকে।

এছাড়া এই ধরণের clone apps গুলো ডাউনলোড করার কোনো well-known sources নেই যার ফলে আপনার privacy compromise হওয়ার ভয় থেকে যায়।

GB WhatsApp এর ক্ষেত্রে WhatsApp app এর source code ব্যবহার করা হয় যদিও সেটা কোনো official license ছাড়াই ব্যবহার করা হয়।

তাই, সফটওয়্যারটি ভাইরাস মুক্ত (free from viruses or malware) কি না সেটা ভেরিফাই করাটাও কিন্তু সম্ভব না।

এছাড়া, information গুলোকে encrypt কিভাবে করা হয় বা করা হয় কি না সেটাও জানা নেই।

এক্ষেত্রে, user এর privacy নিয়ে প্রচুর প্রশ্ন চলে আসে যখন GB WhatsApp এর কথা বলা হয়।

তাই, আমি যদি আমার ব্যক্তিগত মতামত আপনাদের জানাই তাহলে, অবশই কেবল GB WhatsApp বলেই না তবে official WhatsApp ছাড়া অন্য কোনো clone version ব্যবহার না করার পরামর্শ আমি দিবো।

 

আমাদের শেষ কথা,,

তাহলে বন্ধুরা আজকের আর্টিকেলের মাধ্যমে আপনারা জানলেন GB WhatsApp কি এবং কিভাবে ডাউনলোড করতে হবে।

এছাড়া, আমরা এই GB WhatsApp এর কিছু গুরুত্বপূর্ণ features এবং functions গুলো নিয়েও চর্চা করলাম।

যদি আজকের আর্টিকেলটি আপনাদের ভালো লেগে থাকে, তাহলে অবশই আর্টিকেলটি শেয়ার করবেন।

আর্টিকেলের সাথে জড়িত কোনো ধরণের প্রশ্ন বা পরামর্শ থাকলে আমাকে নিচে কমেন্ট করে জানিয়ে দিবেন।

 

>> Related Articles <<

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error:
Scroll to Top
Copy link
Powered by Social Snap