ক্যাপচা কোড কি – Captcha meaning in Bengali

ক্যাপচা মানে কি, ক্যাপচা কোড কি, captcha meaning in Bengali, Captcha Code Full Form in Bengali, আজকের আর্টিকেলের মাধ্যমে আমরা এই প্রত্যেকটি বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা করতে চলেছি। 

ক্যাপচা কোড কি
what is captcha code in Bengali ?

বর্তমান ইন্টারনেট জগতে এই ক্যাপচা (captcha) শব্দটি প্রচুর জনপ্রিয়তা লাভ করেছে।

কেননা, ইন্টারনেট ব্যবহার করা প্রত্যেক ব্যক্তিরাই এই ক্যাপচা শব্দের সাথে পরিচিত।

তবে, শব্দটি শুনে থাকলেও, অনেকেই বুঝতে পারেননা যে আসলে এই ক্যাপচা বা ক্যাপচা কোড বলতে কি বুঝায়

মূলত, যখন আমরা কোনো ফর্ম ফিলাপ করে থাকি, একাউন্ট তৈরি করি, কিছু ডাউনলোড করার আগে, ইত্যাদি এই ধরণের কাজ গুলো অনলাইনে করার সময় ক্যাপচা কোড (captcha code) গুলো ফিলাপ করতে বলা হয়।

Captcha code আলাদা আলাদা রকমের হতে পারে।

যেমন, কিছু কিছু ক্যাপচা কোডের ক্ষেত্রে ব্যবহার করা হয় কেবল সংখ্যা, কিছু ক্ষেত্রে ছবি আবার কিছু ক্যাপচা কোডে থাকতে পারে বাক্য।

চলুন, যদি আপনিও সম্পূর্ণ স্পষ্ট ভাবে জেনেনিতে চাইছেন যে আসলে এই ক্যাপচা কি (what is captcha in Bengali),

তাহলে এই আর্টিকেলের মাধ্যমে সম্পূর্ণ তথ্য বিস্তারিত ভাবে জেনেনিন।

ক্যাপচা কোড কি – (Captcha code meaning in Bengali)

সরল এবং সঠিক ভাবে বলতে গেলে, Captcha Code বা CAPTCHAs  এমন এক অনলাইন ক্রিয়াকলাপ বা টুল যার মাধ্যমে অনলাইন স্প্যাম (online spam) থেকে রক্ষা পাওয়া যায়।

CAPTCHA আমাদের বিভিন্ন online bots, spammer এবং password decryption হওয়ার থেকে সুরক্ষা প্রদান করে।

যেই ওয়েবপেজ গুলো CAPTCHA protected থেকে থাকে, সেগুলোতে আপনি form fill-up, password fill-up বা account তৈরি করার আগে আপনাকে একটি সাধারণ ও সহজ টাস্ক করতে দেওয়া হয়।

এই টাস্ক বা কাজ গুলোর মধ্যে মূলত যেই ক্রিয়াকলাপ অন্তর্ভুক্ত থেকে থাকে,

  • দিয়ে দেওয়া সংখ্যা গুলোকে দেখে দেখে জমা দেওয়া,
  • ছবি গুলোকে সিলেক্ট করা,
  • দেখিয়ে দেওয়া শব্দ গুলোকে সঠিক ভাবে জমা দেওয়া,
  • সংখ্যার যোগ বিয়োগ এর ফলাফল গুলো জমা করা।

ইত্যাদি আরো অনেক ধরণের কাজ রয়েছে যেগুলো ক্যাপচা কোড এর প্রক্রিয়াতে ব্যবহার করা হয়ে থাকে।

Captcha code fill-up এর এই কাজের মাধ্যমে আপনি যে একজন মানুষ (human) সেটাই আপনাকে প্রমান করতে হয়।

কেননা, ইন্টারনেটে প্রচুর computer program এবং bots গুলো সক্রিয় হয়ে রয়েছে যেগুলোর মাধ্যমে স্পামিং (spamming) করা হয়।

তাই, এই ক্যাপচা প্রক্রিয়ার মাধ্যমে আপনি যে একটা bot বা computer program না, সেটাই প্রমান করে থাকেন।

আর এখন যদি আপনি প্রশ্ন করে থাকেন যে “CAPTCHA code কি”, তাহলে এর উত্তর হবে,

ক্যাপচার প্রক্রিয়াতে, সহজে বুঝতে না পারা যেই তেরাবেকা শব্দ, সংখ্যা, প্রতীক, বাক্য ইত্যাদি ব্যবহার করা হয়,

সেগুলোকেই বলা হয় ক্যাপচা কোড।

এখন আপনারা হয়তো কিছুটা স্পষ্ট ভাবে বুঝতেই পারছেন যে, আসলে এই ক্যাপচা কি বা ক্যাপচা বলতে কি বুঝায়। 

আশা করছি, ক্যাপচা কোড কাকে বলে বিষয়টা ভালো করে বুঝতে পেরেছেন।

Captcha Code Full Form in Bengali

ক্যাপচার সম্পূর্ণ মানে হলো – Complete Automated Public Turing Test To Tell Computers and Human Apart.

এর মানে হলো, এটা হলো এমন একটি স্বয়ংক্রিয় পরীক্ষা, যার মাধ্যমে কম্পিউটার এবং আসল মানবের (human) মধ্যে থাকা পার্থক্য বুঝা যেতে পারে।

২০০০ সালে সবচে প্রথমে Luis Von Ahn, Manuel Blum, Nicholas Hopper এবং John Langford এর দ্বারা বিশ্বে সবচে প্রথম বারের জন্য নিয়ে আনা হয়।

এটা এমন এক দারুন প্রক্রিয়া ছিল, যার মাধ্যমে অনলাইন জগতে মানুষ এবং মেশিন এর মধ্যে ভিন্নতা খুঁজে বের করা সম্ভব হয়ে উঠলো।

Captcha code আমরা কেন ব্যবহার করি ?

ক্যাপচা কোডের ব্যবহার মূলত একটি নিরাপত্তা ব্যবস্থা হিসেবে করা হয়ে থাকে এবং এই প্রকৃটি কেবল একজন মানুষের দ্বারা সম্পূর্ণ করা সম্ভব, তবে কোনো মেশিন বা রোবট এই ক্যাপচা সমাধানের কাজ করতে পারেনা।

বর্তমান সময় পর্যন্ত, bots এই ধরণের সিকিউরিটি গুলোকে ভাংতে বা সমাধান করতে পারেনা।

সীমাবদ্ধ এলাকা (Restricted area) গুলোতে hackers এবং spammers দের বাধা দেওয়ার জন্যেই এই মূলত এর ডিজাইন করা হয়েছে।

তাই, বিভিন্ন ওয়েবসাইট, ব্লগ, অনলাইন টুল, সোশ্যাল মিডিয়া ইত্যাদিতে বিভিন্ন ক্ষেত্রে (ফর্ম ফিলাপ, একাউন্ট তৈরি) ক্যাপচা কোড ফিলাপ করতে বলা হয়।

ওয়েবসাইট গুলোতে ক্যাপচা ব্যবহার করার প্রচুর লাভ ও সুবিধা অবশই রয়েছে।

  • Fake account registration হতে বাধা দেওয়া,
  • Fake এবং spam comments হতে দেয়না,
  • আপনার Email account সুরক্ষিত রাখে,
  • Online accounts গুলোর login page টিতে bots দের দ্বারা হওয়া automated login attempt গুলোকে হতে দেয়না।

ক্যাপচা কোডের প্রকার – (Types of captcha code)

আপনি যখন অনলাইনে বিভিন্ন ওয়েবসাইট গুলোতে ভিসিট করেন, তখন হয়তো নানান রকমের ক্যাপচা কোড গুলোর সাথে আপনার মুখোমুখি হয়ে থাকে।

আর তাই, নিচে আমরা স্পষ্ট ভাবে জানার চেষ্টা করবো যে মূলত কত প্রকারের ক্যাপচা কোড গুলো রয়েছে।

  • Text recognition based
  • Image recognition based
  • Social Authentication
  • Logic questions based
  • User interaction based
  • Simple Math Problem

চলুন, নিচে আমরা ক্যাপচার প্রত্যেক প্রকার গুলোর বিষয়ে এক এক করে বিস্তারিত ভাবে জেনেনেই।

Text recognition based

এই ধরণের ক্যাপচা গুলোতে যেগুলো puzzle বা code দেওয়া হয় সেগুলো সবটাই text বেসড হয়ে থাকে।

মানে এখানে image, সংখ্যা ইত্যাদি থাকেনা।

এখানে ক্যাপচা সমাধান করার ক্ষেত্রে আপনাকে text গুলোকে সঠিক ভাবে বুঝতে হবে এবং সেই একি টেক্সট আপনাকে জমা দিতে হবে।

সোজা ভাবে বললে এখানে কেবল টেক্সট বেসড ক্যাপচা আপনালকে দেওয়া হবে।

Image recognition based

নাম শুনেই হয়তো আপনারা বুঝতে পারছেন, এই ধরণের ক্যাপচা গুলোতে আপনাকে কেবল কিছু ছবি দেখিয়ে প্রশ্ন করা হবে।

এই ক্ষেত্রে কোড গুলোর সমাধান বের করার ক্ষেত্রে আপনাকে দিয়ে দেওয়া ছবি গুলোকে সঠিক ভাবে দেখতে হয়।

দিয়ে দেওয়া ছবি গুলোকে সঠিক ভাবে বুঝে জমা দেওয়ার পর আপনাকে ওয়েবসাইট এক্সেস করতে দেওয়া হয়।

Social Authentication

এই ধরণের ক্যাপচার প্রকার গুলো মূলত সোশ্যাল মিডিয়া ওয়েবসাইট গুলোতে ব্যবহার করা হয়।

এই ক্ষেত্রে আপনাকে আপনার বন্ধুদের প্রোফাইল এর ছবি বা একাউন্ট সঠিক ভাবে সিলেক্ট করতে হয়।

নিজের বন্ধুদের প্রোফাইল ছবি গুলোকে সঠিক ভাবে সিলেক্ট করতে পারলেই আপনাকে ওয়েবসাইটে প্রবেশ করতে দেওয়া হবে।

Logic questions based

এই ধরণের ক্যাপচাতে যেগুলো পাজেল দেওয়া হয় সেগুলোতে লজিক প্রশ্ন জিগেশ করা হয়।

এই ধরণের ক্যাপচার ক্ষেত্রে আপনাকে কিছু সাধারণ প্রশ্ন করা হয় যেগুলোর সঠিক উত্তর দিতে পারলে আপনাকে ওয়েবসাইটে প্রবেশ করতে দেওয়া হবে।

User interaction based

এই ধরণের ক্যাপচা গুলোতে যেগুলো প্রশ্ন করা হয় সেগুলো সব user interaction based হয়ে থাকে।

এখানেও code গুলোর সমাধান করার ক্ষেত্রে আপনাকে কিছু প্রশ্নের উত্তর অবশই দিতে হবে।

Simple Math Problem

আপনারা হয়তো অনেক ওয়েবসাইটে ফর্ম ফিলাপ করার ক্ষেত্রে এই ধরণের ক্যাপচা কোড সমাধান অবশই করেছেন।

এই ধরণের ক্যাপচা গুলোতে আপনাকে কিছু সাধারণ এবং একেবারে সহজ ম্যাথ গুলোকে সমাধান করতে বলা হয়ে থাকে।

যেমন, ১১+১০ কত হবে বা ১০-৫ কত হবে ইত্যাদি।

অবশই এই ধরণের ক্যাপচা কোড গুলো একজন মানুষের জনের অনেক সহজ এবং সোজা।

Captcha code এর লাভ এবং সুবিধা গুলো

ক্যাপচা কোড এর ব্যবহার আজ প্রায় প্রত্যেক ওয়েবসাইট এবং অনলনে কোম্পানি গুলোর দ্বারা করা হয়ে থাকে।

এটা এমন এক সুরক্ষা কবজ যা যেকোনো ব্লগ এবং ওয়েবসাইট গুলোকে বিভিন্ন ক্ষেত্রে সুরক্ষা প্রদান করে থাকে।

এগুলো এমন এক ধরনের security test তৈরি করে থাকে, যার সমাধান করাটা bots এবং spammers দের জন্যে সম্ভব হয়ে দাড়ায়না।

চলুন, এখন আমরা সরাসরি ক্যাপচা কোড এর কিছু সেরা লাভ এবং সুবিধা গুলোর বিষয়ে জেনেনেই।

  • একটি ওয়েবসাইট বা ব্লগে কমেন্ট স্প্যাম হওয়ার থেকে বাধা দেয়।
  • Fake এবং spam account registration করতে বাধা দেয়।
  • বিভিন্ন ক্ষেত্রে একটি ওয়েবসাইটকে bots থেকে বাঁচায়।
  • ওয়েবসাইটের লগইন পেজে প্রবেশ করতে বাধা দেয়।

আমাদের শেষ কথা,,

তাহলে বন্ধুরা, আশা করছি আপনারা ভালো করেই বুঝতে পেরেছেন যে ক্যাপচা কোড কি এবং কেন ব্যবহার করা হয়।

আমাদের আজকের আর্টিকেলের সাথে জড়িত কোনো ধরণের প্রশ্ন বা পরামর্শ থাকলে তা অবশই কমেন্ট করে জানাবেন।

আমি আশা করছি, ক্যাপচা কোডের বিষয়ে সবটা আপনি ভালো করেই বুঝতে পেরেছেন।

 

Leave a Comment

Your email address will not be published.

Scroll to Top