অনলাইন ক্লাস কিভাবে করাবো । Online classes কিভাবে হয় জানুন প্রক্রিয়া

যদি আপনি ভাবছেন যে নিজের কোচিং ক্লাস বা টিউশন ক্লাস গুলোকে অনলাইন ক্লাস হিসেবে নিয়ে যেতে তাহলে আজকের এই আর্টিকেল আপনাদের সাহায্য করবে।

অনলাইন ক্লাস কিভাবে করবো
How to start online tuition classes ?

যদি আপনি একেবারে প্রথম বারের জন্যেও online classes করানোর কথা ভাবছেন, তাহলেও চিন্তা করতে হবেনা।

আজকের এই আর্টিকেলের মাধ্যমে অনলাইন ক্লাস কিভাবে হয় এবং অনলাইন ক্লাস কিভাবে করবো এই দুটো প্রশ্নের উত্তর আপনারা পাবেন।

কিভাবে অনলাইনে ক্লাস করা যায় ? এই প্রশ্ন করলে এর মানে দুধরণে বুঝা যেতে পারে। 

  1. আপনি অন্য ছাত্রদের অনলাইনে ক্লাস করানোর প্রক্রিয়া জানতে চাইছেন।
  2. আপনি নিজে অনলাইনে ক্লাস করতে চাইছেন।

তবে, এই আর্টিকেলের মাধ্যমে আমরা আপনাদের বলবো যে কিভাবে আপনি নিজের শিক্ষক হিসেবে অনলাইন ক্লাস শুরু করতে পারবেন। 

বর্তমান সময়ে করোনা ভাইরাস (corona virus) এর কারণে প্রায় অনেক দেশেই lockdown দেওয়া হয়েছে।

আর এই lockdown এবং করোনা থেকে সুরক্ষিত থাকার জন্য বাচ্চারা ঘরে বসে অনলাইনে কোচিং ক্লাস করতে প্রচুর আগ্রহী হয়ে পড়েছেন।

তাই, যদি আপনি একজন শিক্ষক হিসেবে কোনো বিষয়ে বাচ্চাদের পড়াতে পারবেন বলে ভাবছেন, তাহলে অবশই ইন্টারনেটের মাধ্যমে online classes করিয়ে ঘরে বসে ইনকাম করতে পারবেন।

এতে, টেকনোলজির মাধ্যমে বর্তমানের সময়ে বাচ্চাদের পড়াশোনা হয়ে যাওয়ার সাথে সাথে আপনার জন্যেও একটি business opportunity হয়ে দাঁড়াবে।

অনলাইন ক্লাস করার জন্য কি কি লাগবে ?

আপনি সম্পূর্ণ ফ্রীতে ঘরে বসে ইন্টারনেটের মাধ্যমে অনলাইন ক্লাস এর মাধ্যমে বাচ্চাদের পড়াতে পারবেন এবং টাকা ইনকাম করতে পারবেন।

তবে, এই সম্পূর্ণ প্রক্রিয়া গুলো শুরু করার কিছু নিয়ম এবং স্টেপ রয়েছে যেগুলোর বিষয়ে জেনেনিন।

কারণ, যদিও বিভিন্ন ফ্রি অনলাইন প্লাটফর্ম গুলোর মাধ্যমে আমরা ফ্রীতে অনলাইন ক্লাস করানো শুরু করতে পারি,

তবে, ক্লাস করানোর জন্য কিছু অন্যান্য জিনিসের অবশই প্রয়োজন হবে।

Computer / Laptop 

সুবিধাজনক ভাবে online tuition class করানোর জন্য আপনার কাছে একটি computer বা laptop থাকা দরকার।

কম্পিউটারে আপনি ভালো করে নিজের ছাত্রদের সাথে সংযুক্ত হয়ে সুবিধাজনক ভাবে ক্লাস করাতে পারবেন।

Web camera / webcam  

Online coaching class করানোর জন্য আপনার একটি ওয়েব ক্যামেরার প্রয়োজন হবে।

ওয়েব ক্যামেরার মাধ্যমে আপনার ছাত্ররা তাদের computer বা মোবাইলের স্ক্রিনে আপনার face দেখতে পাবেন।

এমনিতে আপনি চাইলে নিজের smartphone এর ব্যবহার করে class করাতে পারবেন, তবে সেটা কিন্তু সুবিধাজনক হবেনা।

Mic 

যখন আপনি live class করানোর সময় কথা বলবেন, তখন সেই কথা গুলো mic এর মাধ্যমে রেকর্ড হয়ে আপনার ছাত্রদের কাছে চলে আসবে।

তাই, live class এর সময় আপনার বলা কথা গুলো যাতে ছাত্ররা শুনতে পারেন, তাই আপনার একটি mic ব্যবহার করতে হবে।

একটি ভালো mic ব্যবহার করলে আপনার ছাত্ররা অনেক স্পষ্ট ভাবে আপনার কথা গুলো শুনতে পারবেন।

Online platform 

অনলাইন টিউশন ক্লাস করানোর জন্য আপনার একটি ভালো online platform এর সাহায্য নিতে হবে।

Online platform মানে হলো সেই প্লাটফর্ম টি যার মাধ্যমে আপনি এবং আপনার ছাত্ররা ইন্টারনেটের মাধ্যমে সরাসরি সংযুক্ত হতে পারবেন।

যেমন, zoom live meeting, YouTube live streaming, Google duo ইত্যাদি।

Place 

এমনিতে online class করানোর জন্য কোনো বিশেষ জায়গার প্রয়োজন হয়না।

কারণ, এখানে ছাত্ররা নিজের ঘর থেকেই online class করে থাকেন।

তবে, শিক্ষক হিসেবে আপনাকে একটি পরিষ্কার এবং শান্ত জায়গায় ক্লাস করানো দরকার যাতে ছাত্রদের অসুবিধে না হয়।

অনলাইন ক্লাস কিভাবে হয় ? সম্পূর্ণ প্রক্রিয়া

এখন, ক্লাস শুরু করার জন্য যদি আপনি প্রত্যেক জরুরি জিনিস গুলোর জোগাড় করেই ফেলেছেন তাহলে এখন চলুন মূল স্টেপস গুলো জেনেনেই।

আপনি কি পড়াবেন ?

দেখুন সব থেকে আগেই আপনাকে এটা ভাবতে হবে যে আপনি বাচ্চাদের অনলাইনে কি পড়াবেন বলে ভেবেছেন।

এমনিতে ইন্টারনেটে পড়ানোর জন্য প্রচুর বিষয় রয়েছে, তবে আপনাকে এটা দেখতে হবে যে আপনি কোন বিষয়ে জ্ঞান রাখেন এবং বিশেষজ্ঞ।

অনলাইন ক্লাস এর ক্ষেত্রে একাধিক বিষয়ে পড়ানোর কথা না ভাবাটাই ভালো।

ধরুন আপনি ১০ ক্লাসের math, science, English এই তিনটি বিষয়েই পড়াতে পারবেন।

তবে প্রত্যেক ৩ টি বিষয়ে না পড়িয়ে ভালো করে চিন্তা করুন যে এই ৩ টি বিষয়ের মধ্যে বাচ্চাদের কোন বিষয়ে অধিক সমস্যা রয়েছে যার জন্যে তারা online class অবশই করবেন।

এবার, কেবল সেই একটি বিষয়ে ক্লাস শুরু করার কথা ভাবুন।

আপনি চাইলে একটি ক্লাসেই একটি সম্পূর্ণ চ্যাপ্টার শেষ করতে পারবেন আবার চাইলে অল্প অল্প করে একাধিক ক্লাসে একটি চ্যাপ্টার শেষ করতে পারবেন।

আপনি কিভাবে পড়াবেন সেটা সম্পূর্ণটা আপনাকে ভাবতে হবে।

ফ্রি ভিডিও দিবেন নাকি পেইড ভিডিও

আপনি যদি সরাসরি লাইভ অনলাইন ক্লাস করাচ্ছেন, তাহলে অবশই বাচ্চাদের থেকে fee নিয়ে তাদের পড়াবেন।

তবে, যদি আপনি লাইভ ক্লাস না করিয়ে ভিডিওর মাধ্যমে ক্লাস করাতে চাইছেন, তাহলে YouTube এর একটি চ্যানেল বানিয়ে সেখানে ভিডিও আপলোড দিতে পারবেন।

এতে, বাচ্চারা সম্পূর্ণ ফ্রীতে আপনার video course গুলো দেখে সেখান থেকে শিখতে পারবেন।

তবে, এভাবে ধীরে ধীরে অনেকেই আপনাকে চিনবেন এবং শিক্ষক হিসেবে নিজেকে অনেক তাড়াতাড়ি জনপ্রিয় করে নিতে পারবেন।

অবশই, আপনার YouTube চ্যানেলে ভালো পরিমানের subscriber হয়ে দাঁড়ালে আপনি Google AdSense বিজ্ঞাপনের মাধ্যমে চ্যানেলে আপলোড দেওয়া ভিডিও গুলোর থেকে প্রচুর ইনকাম করতে পারবেন।

তবে এটা সম্পূর্ণ আপনার ওপরে যে আপনি ফ্রীতে ভিডিও দিয়ে বাচ্চাদের পড়াতে চান, নাকি fee নিয়ে লাইভ অনলাইন ক্লাস করতে চান।

ছাত্র কোথায় পাবেন ?

একসাথে একাধিক বাচ্চাদের অনলাইন ক্লাশ করানোর জন্য আপনাকে প্রথমে students খুঁজতে হবে।

তাই, আপনি আপনার আসে পাশের লোকেদের জানিয়ে রাখতে পারেন যে আপনি কোন বিষয়ে ছাত্রদের অনলাইন ক্লাস দিতে পারবেন।

এছাড়া, অনলাইন সোশ্যাল মিডিয়া প্লাটফর্ম যেমন Facebook, Instagram ইত্যাদিতে নিজের ক্লাস এর বিষয়ে লোকেদের জানাতে পারবেন।

আপনি এভাবে বলতে পারবেন যে, আসছে ২০ তারিখ থেকে আমি ১০ ক্লাসের বিজ্ঞান এবং অংক সাবজেক্ট এর অনলাইন ক্লাস শুরু করতে চলেছি।

তাই, যদি কেও আগ্রহী থাকেন তাহলে আমাদের ক্লাস join করতে পারবেন।

এর পর যদি কেও আপনার online class করতে আগ্রহী থাকে তাহলে তারা আপনার সাথে যোগাযোগ করবেন।

অনলাইন ক্লাস কিভাবে করবো ? – ৫ টি প্লাটফর্ম

আমি আগেই বলেছি কিভাবে অনলাইনে ক্লাস করানোর জন্য আপনাকে একটি অনলাইন প্লাটফর্ম এর সাহায্য নিতে হবে যার মাধ্যমে আপনি এবং আপনার ছাত্ররা একসাথে ইন্টারনেটের মাধ্যমে সংযুক্ত হতে পারবেন।

তাই, নিচে বলে দেওয়া platform গুলোর বিষয়ে জেনেনিন যাতে এগুলোর মাধ্যমে ফ্রীতে ক্লাস করতে পারেন।

  1. YouTube : এর মাধ্যমে নিজের একটি চ্যানেল বানিয়ে ফ্রীতে ভিডিও আপলোড করতে পারবেন বা লাইভ স্ট্রিমিং এর মাধ্যমে লাইভ ক্লাস করাতে পারবেন।
  2. Udemy : এটা একটি সেরা অনলাইন প্লাটফর্ম যেখানে বিশ্বজুড়ে প্রচুর লোকেরা আসেন বিভিন্ন বিষয়ে কোর্স করার উদ্দেশ্যে। আপনি এখানে একটি একাউন্ট তৈরি করে নিজের কোর্স ভিডিও গুলো আপলোড করতে পারবেন। ছাত্ররা আপনার কোর্স করতে হলে কিছু টাকা দিয়ে আপনার কোর্স করতে হবে।
  3. Zoom live meeting : যদি আপনি সরাসরি live video class করতে চাইছেন, তাহলে এই application ব্যবহার করতে পারবেন। Online class করানোর ক্ষেত্রে Zoom প্রচুর জনপ্রিয়তা লাভ করেছে।
  4. Own website : আপনি চাইলে developer এর সাহায্যে বা নিজেই WordPress এর মাধ্যমে নিজের একটি ওয়েবসাইট বানিয়ে সেখানে নিজের কোর্স ভিডিও গুলো আপলোড করতে পারবেন এবং ছাত্রদের একটি community তৈরি করতে পারবেন। ছাত্ররা আপনাকে monthly বা onetime টাকা দিয়ে সম্পূর্ণ video courses গুলো দেখতে পারার ব্যবস্থা করে দিতে পারবেন।
  5. Google drive : আপনি গুগল ড্রাইভ এর মাধ্যমে নিজের বানানো কোর্স ভিডিও গুলোকে ছাত্রদের সাথে শেয়ার করতে পারবেন। ছাত্ররা, সহজেই গুগল ড্রাইভ থেকে আপনার বানানো ভিডিও গুলো ডাউনলোড করে নিতে পারবেন।
  6. Google duo : Google duo হলো একটি high quality video calling app যার মাধ্যমে আপনি একাধিক ছাত্রদের একসাথে অনলাইন ক্লাস অবশই করাতে পারবেন। এটা সম্পূর্ণ ফ্রি এবং যেকোনো Android phones, iPhones, tablets, computers এর মধ্যে কাজ করবে।Google duo ব্যবহার করার জন্য আপনার একটি জিমেইল একাউন্ট অবশই থাকতে হবে। এখানে একসাথে 32 students দেড় group call এর মাধ্যমে online class করাতে পারবেন।
  7. Unacademy : Unacademy অনেক জনপ্রিয় এবং বিখ্যাত একটি online educational technology company যেখানে বাচ্চারা বিভিন্ন বিষয়ে online class করতে আসেন। এই online learning platform এর মধ্যে বিভিন্ন বিষয়ে আপনি class করাতে পারবেন। তবে class করিয়ে টাকা আয় করার জন্য আপনাকে প্রথমে educator হিসেবে apply করতে হবে। এর জন্যে আপনাকে Unacademy Educator App ডাউনলোড করে নিজের demo lesson বানিয়ে upload দিতে হবে। এর পর review team আপনাকে পরের steps গুলো জানিয়ে দিবে।

 

আমাদের শেষ কথা,,

তাহলে বন্ধুরা, অনলাইনে কিভাবে ক্লাস করব বা কিভাবে অনলাইনে ক্লাস করা যায় এই প্রশ্নের উত্তর হয়তো আপনারা পেয়ে গেছেন। 

এমনিতে, সরাসরি অনলাইন ক্লাস করার জন্য মোবাইলে একটি group video call app ব্যবহার করলেও কাজ হয়ে যাবে।

তবে, আপনি মোবাইল থেকে সুবিধাজনক ভাবে class করাতে পারবেননা।

তাই, নিজের কম্পিউটার বা ল্যাপটপের মধ্যে zoom বা Google duo বা অন্যান্য কিছু platform ব্যবহার করে অনলাইন টিউশন ক্লাস করুন।

আশা করছি, how to start online classes in Bangla নিয়ে লিখা আমাদের আর্টিকেল আপনাদের পছন্দ হয়েছে।

আর্টিকেলের সাথে জড়িত কোনো ধরণের প্রশ্ন বা পরামর্শ থাকলে নিচে কমেন্ট করে অবশই জানাবেন।

অবশই পড়ুন

 

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error:
Scroll to Top
Copy link
Powered by Social Snap